Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২০ আগস্ট ২০১৯, ০৫ ভাদ্র ১৪২৬, ১৮ যিলহজ ১৪৪০ হিজরী।

প্রধানমন্ত্রীর জাপান সফরে যোগ দিয়েছেন পদ্মা ব্যাংকের চেয়ারম্যান

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৩০ মে, ২০১৯, ১০:০৩ পিএম

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সফরের অংশ হিসেবে জাপানের সফররত বাংলাদেশের মন্ত্রী, কর্মকর্তা ও ব্যবসায়ীরা বিশ্বের তৃতীয় বৃহত্তম অর্থনীতির কাছ থেকে বহু বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগে আকৃষ্ট করার লক্ষ্যে শীর্ষ জাপানী কোম্পানিগুলির সাথে দেখা করেছেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে প্রশাসনের সঙ্গে ঢাকার আন্তরিক সম্পর্ক তুলে ধরে চার দিনের সফরে গত মঙ্গলবার জাপানে পৌছেন।

সফরের দ্বিতীয় দিন, অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল টোকিওর শীর্ষ জাপানী কোম্পানির প্রতিনিধিদের সাথে দেখা করার জন্য বাংলাদেশী কর্মকর্তাদের একটি দলকে নেতৃত্ব দেন। তিনি আরও বেশি সংখ্যায় বাংলাদেশে বিনিয়োগের জন্য আমন্ত্রণ জানালেন। বাংলাদেশে একটি অফিস স্থাপনকারী সোজিৎ কর্পোরেশনের সিনিয়র কর্মকর্তারা অর্থমন্ত্রীর সাথে দেখা করেছেন এবং বাংলাদেশে বিনিয়োগের আগ্রহ দেখিয়েছেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বেসরকারি খাতের উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান, পদ্মা ব্যাংক লিমিটেডের চেয়ারম্যান চৌধুরী নাফিস সারফাত এবং বাংলাদেশের স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড ব্যাংকের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা নাসের এজাজ বিজয়ও বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠকে সূত্র জানায়, বাংলাদেশ বিশেষ বিনিয়োগ অঞ্চলগুলির সংখ্যা নিয়ে গঠিত একটি বড় উৎপাদন কেন্দ্র হিসেবে উদ্বোধন করে বাংলাদেশে বিনিয়োগের সুযোগ ও সম্ভাবনা তুলে ধরা হয়েছে।

গ্লোাবাল বিজনেস অ্যান্ড সাপোর্ট বিভাগের জেনারেল ম্যানেজার কাজুওমি সাকাই, জ্বালানি ও সামাজিক অবকাঠামো বিভাগের চিফ অপারেটিং অফিসার মাসাকাজু হাশিমতো এবং বিদ্যুৎ ও শিল্প প্রকল্পের জেনারেল ম্যানেজার ইয়শিনোরি সাকাটা বৈঠকে সোজতিজ কর্পোরেশনকে প্রতিনিধিত্ব করেন।

সাম্প্রতিক সপ্তাহগুলিতে সোজিজের কর্মকর্তারা বাংলাদেশ অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষের সাথে একাধিক বৈঠক করেছেন।

জাপানের নেতৃস্থানীয় ব্যবসা গোষ্ঠীগুলির মধ্যে একটি সংস্থা কর্পোরেশনের জ্বালানি ও পরিকাঠামো খাত ও শিল্প পার্কগুলিতে ব্যাপক বিনিয়োগ করতে আগ্রহী।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: প্রধানমন্ত্রী

২০ আগস্ট, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন