Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২ আশ্বিন ১৪২৬, ১৭ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী।

প্রেমের টানে সুদুর চীন ছেড়ে তরুণীর নেত্রকোনায় আগমন : অতপর বিয়ে

এ কে এম আব্দুল্লাহ, নেত্রকোনা থেকে : | প্রকাশের সময় : ১০ জুন, ২০১৯, ১১:৪৯ পিএম

প্রেমের টানে সুদুর চীনের হিলংজিয়া প্রদেশের মুদনঞ্জিয়া শহর ছেড়ে বাংলাদেশের নেত্রকোনায় চলে এসেছেন চীনা তরুণী ইবনাত মরিয়ম ফাইজা।এরপর প্রেমিক জসিম উদ্দিনের পরিবারের সম্মতিতে কলমাকান্দা উপজেলার গুতুরা বাজারে ইসলামী বিধান মতে বিয়ের পর গত রবিবার এক বিবাহোত্তর বৌ-ভাত এর আয়োজন করা হয়। জসিম উদ্দিন গুতুরা বাজারের সিরাজুল ইসলাম আজাদের ছেলে। আর ফাইজা চীনের হিলংজিয়া প্রদেশের মুদনঞ্জিয়া শহরের ওয়াং হুয়ান ঝং ও পাং ইয়ুলিং দম্পতির সন্তান।

স্থানীয় এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, দুবাইয়ে একটি শপিংমলে চাকরীসূত্রে বাংলাদেশের ছেলে জসিম উদ্দিনের সাথে পরিচয় হয় চীনা চেয়ে ফাইজার। ধীরে ধীরে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। মাঝে ৩ বছর চাকরির প্রয়োজনেই দুজন দুই দেশে চলে যান। কিন্তু হৃদয়ের টান তাদের আলাদা করতে পারে নি। এক পর্যায়ে আবারও দুজন দুবাইয়ে দেখা করে বিয়ে করার সিদ্ধান্ত নেন। সেই সিদ্ধান্তে অটল থেকে ফাইজা চীনের হিলংজিয়া প্রদেশের মুদনঞ্জিয়া শহর ছেড়ে গত শুক্রবার বাংলাদেশের নেত্রকোনা জেলার কলমাকান্দা উপজেলার গুতুরা বাজারে জসিমের বাড়িতে চলে আসেন। ফাইজা আগে খ্রীস্টান ধর্মের অনুসারী থাকলেও বিয়ের পূর্বে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেন। কলমাকান্দার ছেলের সাথে চীনা মেয়ের বিয়ের ঘটনাটি এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চ্যলের সৃষ্টি করেছে। আশপাশ এলাকা থেকে প্রতিদিন বিপুল সংখ্যক উৎসুক জনতা তাদের এক নজর দেখতে জসিমের বাড়িতে ভীড় জমাচ্ছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ