Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার ১৬ জুলাই ২০১৯, ০১ শ্রাবণ ১৪২৬, ১২ যিলক্বদ ১৪৪০ হিজরী।

মাকে হত্যার পর মেয়েকে ধর্ষণ!

টাঙ্গাইলে গণধর্ষণ করে ভিডিও ধারণসহ শিকার আরো ৪ : আটক ৪

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৯ জুন, ২০১৯, ১২:০৫ এএম

মানসিক প্রতিবন্ধীকে দল বেঁধে ‘ধর্ষণ করে ভিডিও ধারণ করা হয়েছে। এমন ঘৃণ্য ঘটনা ঘটেছে টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলায়। নওগাঁর মান্দা উপজেলায় মাকে হত্যার পর অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে মেয়েকে ধর্ষণ করা হয়েছে। এছাড়া কুমিল্লার দেবিদ্বারে ১১ বছরের এক শিশু, পটুয়াখালীতে এক কিশোরী, মুলাদীতে পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী ও আড়াইহাজারে প্রতিবেশীর ধর্ষণে মাদরাসা ছাত্রী অন্ত:সত্ত্বার ঘটনায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। এদিকে, লালমনিরহাটে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে এক শিক্ষকসহ বিভিন্নস্থানে ধর্ষণ মামলায় ৪ জনকে আটক করেছে পুলিশ।
নওগাঁ : মাকে গলা কেটে হত্যার পর অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে তরুণীকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় সামিউল ইসলাম ওরফে সাগর (২২) নামের এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ। গত সোমবার রাতেই গৃহবধুর লাশ ও ধর্ষণের শিকার তরুণীকে উদ্ধার করে মান্দা থানাপুলিশ। ওই তরুণী বর্তমানে নওগাঁ সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। নিহতের নাম নাসিমা আক্তার সাথী (৪০)। আটক সামিউল ইসলাম গৃহবধূকে হত্যার পর তার মেয়েকে ধর্ষণের কথা স্বীকার করেছেন বলে পুলিশের দাবি। আটক সামিউলের বাড়ি উপজেলার চকশ্যামরা গ্রামে।

আটক যুবক সামিউল ও ধর্ষণের শিকার তরুণীর বরাত দিয়ে মান্দা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোজাফফর হোসেন বলেন, নিহত গৃহবধুর ছোট মেয়ে স্থানীয় কলেজের একাদশ শ্রেণির ছাত্রী। তার সঙ্গে সামিউলের প্রেমের সর্ম্পক ছিল। সম্প্রতি সেই সর্ম্পকে টানাপোড়ন শুরু হয়। গত সোমবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে ওই তরুণীকে হত্যার উদ্দেশ্যে সামিউল একটি চাকু নিয়ে তাদের বাড়িতে যান। বাড়ির পেছনের দিক দিয়ে ছাদে উঠেন। ছাদের দরজা দিয়ে ওই তরুণীর বাড়িতে ঢোকেন। তরুণীর ঘরের দরজায় কড়া নাড়লে তিনি দরজা খোলেন। এ সময় দুজনের মধ্যে কথাকাটাকাটি হয়। এ সময় তরুণীর মা জেগে উঠেন। সামিউল চাকু দিয়ে তরুণীর মায়ের শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাত করেন। এতে তিনি জ্ঞান হারিয়ে ফেললে তাকে গলা কেটে হত্যা করা হয়। পরে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে তরুণীকে ধর্ষণ করে পালিয়ে যান সামিউল। ওসি জানান, সদর হাসপাতালে ময়নাতদন্ত শেষে গৃহবধূর লাশ স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। ওই হাসপাতালেই ধর্ষণের শিকার তরুণীর স্বাস্থ্য পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে।

পটুয়াখালী : পটুয়াখালীর বাউফল উপজেলায় বিয়ে প্রলোভন দেখিয়ে এক কিশোরীকে ধর্ষণ করা হয়েছে । ওই কিশোরী বর্তমানে সাত মাসের অন্তঃসত্ত্বা । এ ঘটনায় গতকাল মঙ্গলবার সকালে বাউফল থানায় মামলা হয়েছে। পুলিশ ধর্ষক ইমরান হাওলাদারকে (২১) আটক করেছে।
স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে , উপজেলার ধুলিয়া ইউনিয়নের ধুলিয়া গ্রামের ওই কিশোরীর সাথে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে ধর্ষক ইমরানের। এক পর্যায়ে বিয়ে প্রলোভন দেখিয়ে তাকে ধর্ষণ করলে কিশোরী অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে । বিষয়টি জানাজানি হলে ধর্ষক তাকে বিয়ে করতে টালবাহানা করেন। এরপর কোন উপায় না পেয়ে মঙ্গলবার সকালে কিশোরীর বাবা বাউফল থানায় অভিযোগ করেন।

মুলাদী (বরিশাল) : বরিশালের মুলাদীতে পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগে থানায় দুই লম্পটের নামে মামলা দায়ের করা হয়েছে। স্থানীয়ভাবে সালিশ মীমাংসায় ব্যর্থ হয়ে গত রোববার রাতে ছাত্রীর পিতা বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলার আসামি উপজেলার সফিপুর ইউনিয়নের পূর্বচরপদ্মা গ্রামের হেলাল চাকলাদারের পুত্র জাকির চাকলাদার ও সেকান্দার খানের পুত্র মামুন খান।

মামলার সূত্রে জানা গেছে, কালাম চাকলাদারের মেয়ে ও পূর্বচরপদ্মা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী পাশ্ববর্তী পাটক্ষেতে শাক আনতে গেলে সেখানে আগে থেকে অবস্থান করা জাকির চাকলাদার জোড়পূর্বক তাকে ধর্ষণের চেষ্টা চালায় এবং শ্লীলতাহানী করে। এ সময় সেকান্দার খানের পুত্র মামুন খান তাকে দেখে ফেলে এবং বিষয়টি লোকজনকে বলে দেওয়ার কথা বলে সে ওই ছাত্রীকে জড়িয়ে ধরে শ্লীলতাহানী করে এবং ধর্ষণের চেষ্টা করে। এ সময় স্কুল ছাত্রী ধর্ষণে বাধা দিলে জাকির ও মামুন তাকে মারধর করে। এতে সে চিৎকার শুরু করে। ছাত্রীর ডাকচিৎকারে তার মা ও স্থানীয়রা ছুটে আসলে বখাটেরা পালিয়ে যায়।

লালমনিরহাট : লালমনিরহাটে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে মাসুদ রানা (৩২) নামে এক সহকারী শিক্ষককে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলায় হয়েছে। রবিবার রাতে তাকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে গ্রেফতার করা হয়। গতকাল সকালে তাকে লালমনিরহাট আদালতে সোপর্দ করা হবে। মাসুদ রানা হাতীবান্ধার নওদাবাস ইউনিয়নের কিসামত ধওলাই সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক। তিনি টংভাঙা ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের পশ্চিম বেজগ্রাম এলাকার মৃত. তরিব উদ্দিন ছেলে।

আড়াইহাজার ( নারায়ণগঞ্জ) : নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে এক লম্পট প্রতিবেশী চাচার ধর্ষণে এক মাদরাসা ছাত্রী সাড়ে ৪ মাসের অন্ত:স্বত্ত্বা হয়ে পড়েছে। ফলে ওই মাদরাসা ছাত্রীকে অপারেশনের মাধ্যমে তার গর্ভের সন্তান নষ্ট করে ফেলার জন্য ধর্ষক চাপাচাপি করছে। এ ব্যাপারে ধর্ষিতার পিতা বাদী হয়ে সোমবার রাতে আড়াইহাজার থানায় ওই প্রতিবেশীর নামে একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেছেন।

পুলিশ জানায়, ছাত্রীর মাদরাসা বন্ধ থাকায় সে দুপুরে বাড়ীতে ঘুরাফেরা করছিল। এ সময় একই পাড়ার মৃত: মোতালেব মিয়ার ছেলে লম্পট ইয়াসিন (৩৮) তাকে ফুসলিয়ে তার (ধর্ষকের) নির্মাণাধীন দালানের ভিতরে নিয়ে গিয়ে তার ইচ্ছার বিরুদ্ধে বলপূর্বক ধর্ষণ করে। এরপর বেশ কয়েকবার ধর্ষিতাকে ভয় ভীতি দেখিয়ে একই স্থানে শারীরিক মেলা মেশা করতে বাধ্য করে। ফলে ধর্ষিতা অন্ত:স্বত্ত্বা হয়ে পড়ে। ধর্ষক ধর্ষক ইয়াসিন কিশোরীর দুরসম্পর্কের চাচা হন বলে জানা গেছে। আড়াইহাজার থানার ওসি নজরুল ইসলাম জানান, আসামি গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

দেবিদ্বার (কুমিল্লা) : কুমিল্লার দেবিদ্বারে ১১ বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে মঙ্গলবার দুপুরে ইউপি চেয়ারম্যান ধর্ষক সোহেল মিয়াকে (২৪) আটক করে গ্রাম পুলিশের মাধ্যমে থানায় সোপর্দ করে। ধর্ষক সোহেল মোহাম্মদপুর (ডাবপার) গ্রামের সফিকুল ইসলামের পুত্র। পেশায় সে সিএনজি চালিত অটো রিকশা চালক। দেবিদ্বার থানার এস,আই নাফিজ আহমেদ জানান, অভিযুক্ত সোহেল ধর্ষণের দায় স্বীকার করেছে।



 

Show all comments
  • Zafor Ullah ১৯ জুন, ২০১৯, ৩:৫৪ এএম says : 0
    আমি অপরাধীর দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দাবি করছি।
    Total Reply(0) Reply
  • আকাশ ১৯ জুন, ২০১৯, ১:৫৭ এএম says : 0
    ki suru hoice allah...
    Total Reply(0) Reply
  • Kazi Zobayer Ahmed ১৯ জুন, ২০১৯, ৩:৫২ এএম says : 0
    দেশে ‘ধর্ষণ আর সড়ক দুর্ঘটনা’ মরণব্যাধিতে পরিণত হয়েছে। এর কী কোন প্রতিকার নেই?
    Total Reply(0) Reply
  • Sultana Suchuna ১৯ জুন, ২০১৯, ৩:৫৫ এএম says : 0
    মাদক চোরাচালান কারীকে পাওয়ার সাথে সাথে ক্রসফায়ারে মারা হয় এদের মারা হয় না কেনো??? না পারলে জনগনের হাতে তুলে দেন ওরে পিটিয়ে হত্যা করা হবে।
    Total Reply(0) Reply
  • Kulsuma Begum ১৯ জুন, ২০১৯, ৩:৫৫ এএম says : 0
    জনসম্মুখে পাথর মেরে মৃত্যু কার্যকর করা হোক।
    Total Reply(0) Reply
  • Rabiul Islam Robi ১৯ জুন, ২০১৯, ৩:৫৫ এএম says : 0
    এই হিংস্র ! নির্বিকারে আমাদের সমাজে প্রবাহিত হচ্ছে, অতি দ্রুত ব্যবস্থা নিতে হবে। সমাজ কে রক্ষা করুন
    Total Reply(0) Reply
  • Jahid Hasan ১৯ জুন, ২০১৯, ৩:৫৬ এএম says : 0
    হিংস্র জানোয়ার গুলোও দেখতে অবিকল মানুষের মত!!!! যৌন লালসা কি এতটাই হিংস্র??? প্রকাশ্যে ইট পাথর মেরে হত্যা করতে হবে, যেন এই হিংস্রতা আর না ছড়িয়ে পরে।
    Total Reply(0) Reply
  • Sadia Ferdous ১৯ জুন, ২০১৯, ৩:৫৪ এএম says : 0
    এদের জন্য ক্রস ফায়ার ই যুক্তিযুক্ত এবং একমাত্র শাস্তি হিসেবে গন্য হওয়া উচিত
    Total Reply(0) Reply
  • এদের বিচার চাই ১৯ জুন, ২০১৯, ৯:৩২ এএম says : 0
    এখানে আপনি আপনার মন্তব্য করতে পারেন
    Total Reply(0) Reply
  • নাহিদ শিকদার ১৯ জুন, ২০১৯, ৮:৫৪ এএম says : 0
    ধর্ষনকারীদের ক্রসফায়ার চাই
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ধর্ষণ

১১ জুলাই, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ