Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার , ১৬ ডিসেম্বর ২০১৯, ০১ পৌষ ১৪২৬, ১৮ রবিউস সানি ১৪৪১ হিজরী

নামের আগে কিংবদন্তি বিশেষণ জুড়ে দিলে তা হয় না-ববিতা

অভি মঈনুদ্দীন : | প্রকাশের সময় : ২৪ জুন, ২০১৯, ১২:০৫ এএম

আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন নায়িকা ববিতা অনেকটা দীর্ঘদিন ধরেই চলচ্চিত্র থেকে দূরে আছেন। মনের মতো চরিত্র না পেলে অভিনয় করবেন না বলেও ঘোষণা দিয়েছেন। তবে একজন পরিচালকের সিনেমায় অভিনয় করার ব্যাপারে কথা হয়েছিল। পরিচালককে তার চরিত্রটির ব্যাপারে কিছু কারেকশন দিয়েছিলেন। শেষ পর্যন্ত মনের মতো চরিত্রে না হওয়ায় ববিতা তা না করে দিয়েছেন। ফলে সহসা চলচ্চিত্রে তার ফেরা হচ্ছে না। আদৌ ফিরবেন কিনা তার নিশ্চয়তা নেই। কারণ আমাদের দেশের সিনেমা নির্মাণের প্রেক্ষাপটে গল্প এখনো শুধু নায়ক-নায়িকা কেন্দ্রিক। ববিতার মতো আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন নায়িকাকে কেন্দ্র করে সিনেমা নির্মাণ হয় না। যদি তাই হতো তাহলে চলচ্চিত্রের আরো অনেক কিংবদন্তী নায়িকা যেমন শবনম, সুচন্দা, কবরী, সুজাতা, সূচরিতা’সহ আরো অনেককেই অভিনয় থেকে দূরে সরে থাকতে হতোনা। অন্যদিকে সিনেমা নির্মাণও কমে গেছে। এ অবস্থায় কিংবদন্তী তারকাদের নিয়ে গল্প’র প্লট সাজিয়ে সিনেমা নির্মাণ অনেকেই চ্যালেঞ্জ মনে করেন। ববিতা বলেন, ‘এখনো সিনেমার দর্শক আছে, এটা আমি বিশ্বাস করি। ভালো গল্পের সিনেমা যুগের পর যুগ দর্শক দেখতে চায়। পাশের দেশ ভারতের দিকে তাকালে অমিতাভ বচ্চনের এখনো সিনেমায় নিয়মিত কাজ করার বিষয়টি বিশেষভাবে চোখে পড়ে। তাকে কেন্দ্র করেই গল্প নির্মিত হচ্ছে। শ্রীদেবরী মতো নায়িকাকে কেন্দ্র করে সিনেমা নির্মিত হয়েছে। যদি তাই হতে পারে তবে আমাদের দেশে কেন হবে না। আমার বিশ্বাস, আমাদের এখানে মেধাবী কাহিনীকার ও নির্মাতা আছেন। শুধু উদ্যোগের অভাব। উদ্যোগী হলেই আমাদের মতো যারা আছি তাদেরকে নিয়ে সিনেমা নির্মাণ সম্ভব। নামের আগে শুধু কিংবদন্তী বিশেষণ জুড়ে দিলেই তা হয়না, কিংবদন্তীদের নামের আগে বিশেষণের চেয়ে তাদের নিয়ে কাজ করিয়ে প্রমাণ করতে হবে তারা সত্যিকার অর্থেই কিংবদন্তী। আমার বিশ্বাস, নির্মাতারা চাইলে তা পারেন। শুধু মনোবল প্রয়োজন।’ উল্লেখ্য, নারগিস আক্তারের নির্দেশনায় সর্বশেষ ববিতাকে ‘পুত্র এখন পয়সাওয়ালা’ সিনেমায় অভিনয় করতে দেখা যায়। এরপর আর নতুন কোন সিনেমায় তাকে দেখা যায়নি। এদিকে ডিসট্রেস চিলড্রেন ইনফ্যান্ট ইন্টারন্যাশনালের শুভেচ্ছা দূত হয়ে বেশ কয়েকবছর ধরে কাজ করে যাচ্ছেন ববিতা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন