Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার ১৮ জুলাই ২০১৯, ০৩ শ্রাবণ ১৪২৬, ১৪ যিলক্বদ ১৪৪০ হিজরী।

বোয়ালমারীতে ইভটিজিং এর অভিযোগে যুবকের তিন মাসের জেল

ফরিদপুর জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৫ জুন, ২০১৯, ৪:০৩ পিএম

ফরিদপুরের বোয়ালমারী পৌরসভার আধাঁরকোঠা গ্রামে ইভটিজিং এর অভিযোগে মনু মিয়া বিশ্বাস (২৬) নামে এক যুবককে তিন মাসের জেল দিয়েছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। মঙ্গলবার সকালে অভিযোগ পেয়ে সরেজমিনে গিয়ে বোয়ালমারী সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সাকিলা বিনতে মতিন স্বাক্ষ্য প্রমানের ভিত্তিতে আবদীন বিশ্বাসের ছেলে মনু বিশ্বাসকে দণ্ড বিধির ১৮৬০ সালের ৫০৯ ধারায় তিন মাসের বিনাশ্রম কারাদ- দেন।
আদালত সূত্রে জানা যায়, পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর শফিউল আলম টুলুর ভাতিজি মহিলা মাদ্রসার প্রথম শ্রেণীর শিক্ষার্থী মাদ্রাসায় যাতায়াতের সময় মনু বিশ্বাস ইভটিজিং করতো বলে অভিযোগ করে কাউন্সিলর। অভিযোগের ভিত্তিতে মঙ্গলবার সকালে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আধাঁরকোটার মোড়ে মনু বিশ্বাসের খাবার হোটেলে অভিযান চালিয়ে তাকে আটক করে ও আদালত বসিয়ে তাৎক্ষনিক সাজাপ্রদান করেন।
সাজাপ্রাপ্ত মনু বিশ্বাসের পিতা মো. আবদীন বিশ্বাস বলেন, দোকান ভাড়ার দেনা-পাওনা নিয়ে কাউন্সিলরের ভাই পান্নু বিশ্বাসের সাথে গত ২১ জুন আমার ছেলের কথা কাটাকাটি ও হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। এ ঘটনার জের ধরে আক্রোশের বশে ষড়যন্ত্র করে আমার ছেলেকে মিথ্যা ইভটিজিং এর অভিযোগে ফাঁসানো হয়েছে।
এ বিষয়ে কাউন্সিলর শফিউল আলম টুলু বলেন, আমার ভাতিজি মাদ্রাসায় যাওয়া আসার সময় মনু প্রায়ই উত্যাক্ত করতো। তাকে এ বিষয়ে নিষেধ করলেও সে কর্ণপাত করেনি। যে কারনে আইনের আশ্রয় নিতে বাধ্য হয়েছি। আমার ভাইয়ের সাথে হাতাহাতির কোন ঘটনা ঘটেনি।
বোয়ালমারী সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সাকিলা বিনতে মতিন বলেন, স্বাক্ষ্য প্রমাণের ভিত্তিতেই আসামি মনু বিশ্বাসকে তিন মাসের সাজা দেয়া হয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইভটিজিং


আরও
আরও পড়ুন