Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ১৮ আগস্ট ২০১৯, ০৩ ভাদ্র ১৪২৬, ১৬ যিলহজ ১৪৪০ হিজরী।

সোনাইমুড়ীতে কিশোরীকে গণধর্ষণ, প্রেমিক আটক

নোয়াখালী ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ২৮ জুন, ২০১৯, ৬:৫০ পিএম

বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে বেগমগঞ্জ উপজেলা থেকে পার্শ্ববর্তী সোনাইমুড়ী উপজেলার বজরা ইউনিয়নে নিয়ে এক কিশোরী (১৭)কে তিন বন্ধু মিলে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। ঘটনায় ভিকটিমের কথিত প্রেমিক রফিকুল ইসলাম হয় (২৬) কে আটক করেছে পুলিশ।

ঘটনায় শুক্রবার সকালে ভিকটিম বাদী হয়ে তিনজনকে আসামী করে সোনাইমুড়ী থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। আসামীরা হলো, রফিকুল ইসলাম জয় (২৬), সাজ্জাদ হোসেন বাবু (২৮) ও সাইফুল ইসলাম (২০)। ভিকটিম বেগমগঞ্জ উপজেলার তিতা হাজেরা এলাকার মহি উদ্দিনের মেয়ে।

পুলিশ জানায়, বেগমগঞ্জের আপানিয়া এলাকার বাসিন্দা রফিকুল ইসলাম জয় বুধবার তিতা হাজরা এলাকার বাসিন্দা কিশোরী (১৭)কে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে পার্শ্ববর্তী সোনাইমুড়ী উপজেলার বজরা ইউনিয়নের রসুলপুর গ্রামের সাজ্জাদ হোসেন বাবুর বাড়ীতে নিয়ে যায়। পরে ওইদিন রাতে থেকে বৃহস্পতিবার রাত পর্যন্ত জয়, বাবু ও সাইফুল পাঁচ বার ভিকটিমকে গণধর্ষণ করে। বিষয়টি স্থানীয় লোকজনের নজরে আসলে তারা গভীর রাতে থানায় খবর দেয়।

সোনাইমুড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুস সামাদ জানান, খবর পেয়ে ভিকটিমকে উদ্ধার ও ঘটনাস্থল থেকে মামলার প্রধান আসামী জয়কে আটক করা হয়েছে। ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য ভিকটিমকে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। মামলার অপর আসামীদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: গণধর্ষণ

২২ জানুয়ারি, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ