Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার ২২ জুলাই ২০১৯, ০৭ শ্রাবণ ১৪২৬, ১৮ যিলক্বদ ১৪৪০ হিজরী।
শিরোনাম

ঢাবিতে তামাক কর নিয়ে তিন দিনব্যাপী প্রশিক্ষণের সমাপ্তি

একসঙ্গে কাজ করার প্রত্যয়

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৪ জুলাই, ২০১৯, ৬:১৬ পিএম

কর বৃদ্ধি তামাক নিয়ন্ত্রণের একটি কার্যকর উপায়। কর বৃদ্ধির মাধ্যমে তামাকজাত দ্রব্যের দাম বাড়লে একদিকে যেমন এর ব্যবহার কমে অন্য দিয়ে সরকারের রাজস্ব আয় বৃদ্ধি পায়। এটি একই সঙ্গে জনস্বাস্থ্য সুরক্ষা এবং সরকারের আয় বৃদ্ধির ওপর ইতিবাচক অবদান রাখে।

বৃহস্পতিবার (৪ জুন) ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কলা ভবনে অর্থনৈতিক গবেষণা ব্যুরোর কনফারেন্স হলে ‘তামাক কর’ বিষয়ক ৩ দিনব্যাপী একটি প্রশিক্ষণ কোর্সের সমাপনী অনুষ্ঠানে বক্তারা একথা বলেন। প্রশিক্ষণে সরকারের বিভিন্ন মন্ত্রণালয়, বিভাগ ও সংস্থার কর্মকর্তা, সাংবাদিক ও তামাক নিয়ন্ত্রণ কর্মীরা অংশ নেন। জনস্বাস্থ্য উন্নয়নে তামাক ও তামাকজাত দ্রব্যের ওপর কর বৃদ্ধিতে একসাথে কাজ করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন তারা।

অর্থনৈতিক গবেষণা ব্যুরোর চেয়ারম্যান প্রফেসর এমএম আকাশের সভাপতিত্বে সমাপনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ব্যুরোর পরিচালক প্রফেসর ড. নাজমা বেগম ও আন্তর্জাতিক সংস্থা দ্য ইউনিয়নের কারিগরি পরামর্শক সৈয়দ মাহবুবুল আলম। অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের প্রফেসর ড. রুমানা হক।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনৈতিক গবেষনা ব্যুরো ও জাতীয় তামাক নিয়ন্ত্রন সেল যৌথভাবে ‘ইকোনোমিক্স অব ট্যোবাকো ট্যাক্সেশন পাবলিক হেলথ পাসপেকটিভ’ শিরোনামে তামাক কর বিষয়ক তিন দিনের এই প্রশিক্ষন আয়োজন করে।

মঙ্গলবার (২ জুলাই) এই প্রশিক্ষন কোর্সের উদ্ভোধন করেন স্বাস্থ্য মন্ত্রনালয়ের স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সচিব মো. আসাদুল ইসলাম। আন্তর্জাতিক উন্নয়ন সংস্থা দ্য ইউনিয়নের আর্থিক সহযোগিতায় এই প্রশিক্ষণ কোর্সের আয়োজন করা হয়।


প্রক্ষিণের বিভিন্ন অধিবেশনে প্রশিক্ষক হিসাবে ছিলেন জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের সাবে চেয়ারম্যান ড. নাসির উদ্দিন আহমেদ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের প্রফেসর ড. নাজমা বেগম ও প্রফেসর ড. রুমানা হক, বিশিষ্ট ক্যান্সার বিষেশজ্ঞ প্রফেসর ডা. গোলাম মহিউদ্দিন ফারুক, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার ডা. সৈয়দ মাহফুজুল হক, জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের সাবেক সদস্য আমিনুর রহমান, বোর্ডের দ্বিতীয় সচিব মো. তারিক হাসান, সাংবাদিক সুশান্ত সিনহা এবং জাতীয় তামাক নিয়ন্ত্রন সেলের প্রোগ্রাম অফিসার আমিনুল ইসলাম সুজন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ঢাবি


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ