Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ১৯ অক্টোবর ২০১৯, ০৩ কার্তিক ১৪২৬, ১৯ সফর ১৪৪১ হিজরী

মিৎসুবিশির হাইব্রিড গাড়ি আনল র‌্যাংগস

অর্থনতিক রিপোর্টার : | প্রকাশের সময় : ৯ জুলাই, ২০১৯, ১২:০৬ এএম

বাংলাদেশের বাজারে জাপানের বিখ্যাত মিৎসুবিশির হাইব্রিড স্পোর্টস ইউটিলিটি ভেহিকল নিয়ে আসলো দেশীয় পরিবেশক র‌্যাংগস লিমিটেড। গতকাল এক সংবাদ সম্মেলনে মিৎসুবিশি আউটল্যান্ডার পিএইচইভিকেই বিশ্বের প্রথম হাইব্রিড এসইউভি শ্রেনীর গাড়ি হিসেবে পরিচয় করিয়ে দেন র‌্যাংগস লিমিটেডের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা শোয়েব আহমেদ।


রাজধানীর তেজগাওয়ে মিৎসুবিশি প্রদর্শনী কেন্দ্রে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রতিষ্ঠানটির ব্যক্তিগত গাড়ির বিক্রয় বিভাগের প্রধান সাদিকুল মোস্তাক, মার্কেটিং প্রধান ফারহান হাদী এবং সাপ্লাই চেইন বিভাগের সহকারী ম্যানেজার ফরিদ আল সোহান উপস্থিত ছিলেন। কর্মকর্তারা জানান, নিত্যনতুন উদ্ভাবনের মাধ্যমে মিৎসুবিশি আউটল্যান্ডার পিএইচইভি গত চার বছর ধরে ইউরোপের বাজারে ‘সেরা বিক্রিত’ গাড়ির তকমা ধরে রেখেছে। র‌্যাংগস লিমিটেডের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা শোয়েব আহমেদ বলেন, মিৎসুবিশি আউটল্যান্ডার পিএইচইভিতে ইঞ্জিনের সাথে দুটি আলাদা মোটর থাকার কারণে এটি চালকের প্রয়োজন অনুযায়ী তিনটি ভিন্ন মোডে চলতে পারে। হাইব্রিড গাড়িটির ব্যাটারিতে একবার চার্জ দিলে শুধু ব্যাটারি দিয়েই ৫৪ কিলোমিটার পর্যন্ত যাওয়া যাবে। পাশাপাশি, দৈনন্দিন চলাফেরার জন্যে রয়েছে দুটি হাইব্রিড মোড, যা সহায়তা করবে তেলের খরচ আর কার্বন-ডাই-অক্সাইড নিঃসরণ কমাতে।
মিৎসুবিশি আউটল্যান্ডার পিএইচইভির ব্যাটারি গ্রাহকের বাসায় বা গ্যারেজেই সহজে চার্জ করা যাবে। ১২ কিলোওয়াট আওয়ারের এই ব্যাটারিকে মাত্র ২৫ মিনিটে ৮০ শতাংশ পর্যন্ত দ্রুত চার্জ করে ফেলা যায়।


যাত্রা শুরুর ছয় বছরের মধ্যে ‘বেস্ট প্লাগ-ইন ভেহিকেল, গ্রীন এসইউভি অব দ্য ইয়ার এবং জাপানের সেরা উদ্ভাবনী গাড়ির স্বীকৃতি রয়েছে মিৎসুবিশি আউটল্যান্ডার পিএইচইভির ঝুলিতে। বাংলাদেশে আউটল্যান্ডারের বিক্রয়োত্তর সেবার জন্য জাপানী প্রতিষ্ঠানটির অনুমোদন রয়েছে র‌্যাংগস ওয়ার্কশপ লিমিটেডের। জাপানে প্রশিক্ষিত জনবল নিয়ে তারা গ্রাহকের সব সমস্যা সমাধানে প্রস্তুত। আর মিৎসুবিশি আউটল্যান্ডার পিএইচইভি গাড়িটি এখন থেকে পাওয়া যাবে র‌্যাংগস লিমিটেডের ঢাকা ও চট্টগ্রাম প্রদর্শনী কেন্দ্রে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন