Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৭ আশ্বিন ১৪২৬, ২২ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী

বিদায় নয়, জাগার ‘ছাওয়াল’কে নিজেদের কাছেই রাখলেন রংপুরবাসী

রংপুর থেকে স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৬ জুলাই, ২০১৯, ৬:২১ পিএম

প্রিয় নেতা ‘জাগার ছাওয়াল’ এরশাদকে নিজেদের জায়গাতেই রাখলেন এরশাদ প্রিয় রংপুরবাসী। প্রবল বাধার মুখেও তারা প্রিয় এরশাদকে রংপুর থেকে নিতে যেতে দিলেন না। এর মাধ্যমে রংপুরের মানুষ আবারো বুঝিয়ে দিলেন তারা প্রিয় নেতা এরশাদকে কতোটা ভালবাসেন। ১৯৯০ সালে এরশাদকে ফাসীর হাত থেকে বাঁচিয়েছিলেন রংপুরের মানুষ। এর পর প্রতিটি নির্বাচনেই বিপুল ভোটে বিজয়ী করেন। জানাজা শেষে প্রিয় নেতাকে নিয়ে গাড়িটি রওয়ানা হওয়ার প্রস্তুতি নিলে লাখ লাখ জনতা তা ঘিরে ধরে আটকে রাখেন।
এর আগে তাকে ঢাকার বনানীর সেনা কবরস্থানে দাফন করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। কিন্তু রংপুরের মানুষ তাদের প্রাণপ্রিয় নেতাকে রংপুর শহরে দাফনের সিদ্ধান্ত নেয়। সোমবার সন্ধ্যার মধ্যে কবরও প্রস্তুত করা হয়। জানাজায় লাখ মানুষ আওয়াজ তোলেন এরশাদের লাশ ঢাকায় নিয়ে যেতে দেয়া হবে না। এ নিয়ে হট্রগোল হয়। জিএম কাদের সহ কেন্দ্রীয় নেতারা অনেক বনানীতে লাশ দাফনের সিন্ধান্তে অটল থাকার চেষ্টা করেও রংপুরের মানুষের আবেগের কাছে পরাজিত হন। লক্ষ জনতার বাধার মুখে পরাজিত হয়ে সিদ্ধান্ত পাল্টে তাকে রংপুরেই দাফনের সিদ্ধান্ত দেয়া হয়। রংপুরের মানুষের ভালোবাসার প্রতি শ্রদ্ধা রেখে পল্লী নিবাস-এ দাফন করার অনুমতি দেন বেগম রওশন এরশাদ। পাশে রওশন এরশাদের জন্য কবরের জায়গা রাখার অনুরোধও করেন তিনি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: এরশাদ

৩১ আগস্ট, ২০১৯
১৭ জুলাই, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন