Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার, ১৪ নভেম্বর ২০১৮, ৩০ কার্তিক ১৪২৫, ০৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী

মসজিদ-মাদরাসা বাদ দিয়ে হিন্দুদের জন্য বাজেটে বরাদ্দ সংবিধানবিরোধী-সিলেটে ইসলামী আন্দোলন

প্রকাশের সময় : ৬ জুন, ২০১৬, ১২:০০ এএম

সিলেট অফিস : ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ সিলেট জেলা ও মহানগর শাখার নেতৃবৃন্দ বলেছেন, বাংলাদেশে শতকরা ৯৫ ভাগ মুসলমান। এদেশে মসজিদ রয়েছে ৫ লাখেরও বেশি। দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলের মাদরাসা, এতিমখানা, হেফজখানা, মক্তবÑএর জন্য কোনো অর্থ বরাদ্দ না রেখে অধিকাংশ মুসলিম সংসদ সদস্যদের উপস্থিতিতে শুধু হিন্দু সম্প্রদায়ের জন্য দুশো কোটি টাকার বাজেট রেখে মুসলমানদের প্রতি চরম বৈষম্য করা হয়েছে, যা ’৭২-এর সংবিধানের মূল চেতনাবিরোধী এবং মানবতাবিরোধীও। অথচ সরকারের উচিত ছিল মসজিদ, মাদরাসার বিদ্যুৎ বিল, পানির বিল মওকুফ করে দেয়া। নেতৃবৃন্দ ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, বিতর্কিত শিক্ষানীতি ও শিক্ষা আইন কোন মুসলমান মেনে নিতে পারেনা। কারণ মুসলমান ছাত্র ছাত্রীদের জন্য হিন্দু ধর্মীয় বিষয়াদী শিখতে বাধ্যতামূলক করা হয়েছে এবং প্রস্তাবিত শিক্ষা আইনের ১১নং ধারার ২নং উপধারায় বলা হয়েছে নিবন্ধন ব্যতীত কোন অবস্থাতেই বেসরকারী বিদ্যালয় এবং কোন মাদরাসা স্থাপন ও পরিচালনা করা যাবে না।
মাহে রমজানের পবিত্রতা রক্ষার্থে দিনের বেলায় হোটেল-রেস্তোরাঁ বন্ধ, দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি রোধ ও কালোবাজারী বন্ধের দাবীতে গতকাল ৫ জুন রোববার ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ সিলেট জেলা ও মহানগরের উদ্যোগে বাদ আছর নগরীর কোর্ট পয়েন্টে থেকে মাহে রমজান কে শুভেচ্ছা জানিয়ে এক স্বাগত মিছিল বের করে। মহানগর সভাপতি মুফতী মো. ফখরুদ্দীন এর সভাপতিত্বে ও সেক্রেটারী ডা. রিয়াজুল ইসলাম রিয়াজের পরিচালনায় মিছিলপূর্ব সমাবেশে বক্তব্য রাখেন সিলেট জেলা সভাপতি নজির আহমদ, সেক্রেটারী হাফিজ মাওলানা ইমাদ উদ্দিন, ইসলামী শ্রমিক আন্দোলন সিলেট জেলা সভাপতি মো. ফজলুল হক, ইশা ছাত্র আন্দোলন সিলেট জেলা সভাপতি মু. সোহেল আহমদ, মহানগর সভাপতি মাহমুদুল হাসান প্রমুখ।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।