Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার, ১৬ অক্টোবর ২০১৯, ০১ কার্তিক ১৪২৬, ১৬ সফর ১৪৪১ হিজরী

ইরানে ১৭ সিআইএ এজেন্ট আটক, কয়েকজনের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২২ জুলাই, ২০১৯, ৫:৩৩ পিএম

সন্দেহভাজন ১৭ মার্কিন গুপ্তচরকে আটক করেছে ইরান। আটককৃতরা মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থা সেন্ট্রাল ইন্টেলিজেন্স এজেন্সির (সিআইএ) হয়ে কাজ করছিলেন বলে জানিয়েছে তেহরান। সোমবার ইরানের গোয়েন্দা বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক সংবাদমাধ্যম সিএনএন।

ইরানের গোয়েন্দা বিষয়ক মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, তারা সিআইএ-র একটি সক্রিয় চক্রকে ধ্বংস করতে সক্ষম হয়েছে। এ চক্রটি সমন্বিতভাবে ইরানে তৎপর ছিল। এদিকে বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে যে, ১৭ গুপ্তচরকে আটকের পর ইতোমধ্যে তাদের কয়েকজনের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করেছে ইরান।


ইরানের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে প্রচারিত ছবিতে সন্দেহভাজন এই গুপ্তচরদের সঙ্গে সিআইএ'র কর্মকর্তাদের দেখা যায়। তেহরানের এই অভিযোগের ব্যাপারে তাৎক্ষণিকভাবে সিআইএ কিংবা যুক্তরাষ্ট্রের কর্মকর্তাদের কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি। গত জুনে ইরান সিআইএ গুপ্তচরদের একটি চক্র ভেঙে ফেলার ঘোষণা দেয়।

সোমবার এক সংবাদ সম্মেলনে এ বিষয়ে কথা বলেন ইরানের গোয়েন্দা মন্ত্রণালয়ের গুপ্তচরবিরোধী দফতরের পরিচালক। তিনি বলেন, সিআইএ-র হয়ে কাজ করা ১৭ পেশাদার গুপ্তচরকে গত ১৮ জুন আটক করা হয়। এসব গুপ্তচর সরকারের বিভিন্ন সংস্থা ও বেসরকারি সেক্টরে কর্মরত ছিল যাদের সঙ্গে কয়েকটি কেন্দ্রের যোগাযোগ রয়েছে।

আটক ১৭ ব্যক্তি আলাদাভাবে কাজ করছিল। তাদের একজনের সঙ্গে অন্যজনের কোনও যোগাযোগ নেই। এর মধ্যে কাউকে কাউকে ভিসার ফাঁদে ফেলে সিআইএ গুপ্তচরবৃত্তিতে বাধ্য করেছে। কাউকে কাউকে সরাসরি বলা হয়েছে, মার্কিন ভিসা পেতে হলে গুপ্তচরবৃত্তি করতে হবে।


আটককৃত গুপ্তচররা ইরানের অর্থনৈতিক, পারমাণবিক, অবকাঠামোগত, সামরিক ও সাইবার ক্ষেত্রের মতো স্পর্শকাতর এবং গুরুত্বপূর্ণ বেসরকারি খাতে নিয়োজিত ছিল। সেখান থেকে তারা বিশেষ গোপনীয় তথ্য সংগ্রহ করেছিল বলে ইরানের গোয়েন্দা মন্ত্রণালয়ের তরফ থেকে জানানো হয়।

এমন সময়ে ইরান মার্কিন গুপ্তচরদের গ্রেফতারের এ ঘোষণা দিলো যখন তেহরানের সঙ্গে বিদ্যমান উত্তেজনার মধ্যেই সৌদি আরবে নতুন করে আরও সেনাসদস্য এবং সামরিক সরঞ্জাম মোতায়েন করছে যুক্তরাষ্ট্র। ইতোমধ্যেই এ প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে।



 

Show all comments
  • Ahamed karim ২২ জুলাই, ২০১৯, ৯:২০ পিএম says : 0
    ইরানী জাতি মুসলিম বিশ্বের মুকুট, আমেরিকা হচ্ছে বেহায়া, কুলাঙ্গার।লন্ডন হচ্ছে দালাল,চাটুকার। সৌদি ইসরাইল হচ্ছে ...।ইরান তুমি ভয় পেয়ো না, আল্লাহর সাহায্য তোমাদের জন্য অপেক্ষা করছে,ঐ শিয়াল কুকুরের বাচ্চারা তোমাদের কিছু করতে পারবে না।
    Total Reply(1) Reply
    • kuli ২৭ জুলাই, ২০১৯, ৯:২২ পিএম says : 0
      "ইরানী জাতি মুসলিম বিশ্বের মুকুট" না।ইরান রা শিয়া ধর্মের এবং সুন্নিদের ঘৃণা করে।সৌদি রাজ পরিবার গুলা কুলাঙ্গার এটা ঠিক।

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইরান

৭ অক্টোবর, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন