Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার , ১৬ ডিসেম্বর ২০১৯, ০১ পৌষ ১৪২৬, ১৮ রবিউস সানি ১৪৪১ হিজরী

হাথুরুসিংহেই ভরসা তামিমের!

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৯ জুলাই, ২০১৯, ৫:৫১ পিএম

বাংলাদেশের কোচিংয়ের দ্বায়িত্ব ছেড়েছেন ২০১৭ সালে দক্ষিন আফ্রিকা সিরিজ শেষে। খেলোয়াড়দের সঙ্গে তার সম্পর্কও ছিল খারাপ, এমনই শোনা যেত। তিনি যখন দ্বায়িত্ব নেন, খুব ভালো অবস্থায়ও ছিলনা বাংলাদেশ। মূলত তার কোচিংকালেই টাইগারদের সমীহ নয়, ভয় পেতে শুরু করেছে বিশ্ব পরাশক্তিরা। তিনি বাংলাদেশ জাতীয় দলের সাবেক কোচ চন্দিকা হাথুরুসিংহে।
বিশ্বকাপ থেকেই বাংলাদেশ দলের দৈণ্যদশা কাটছে। লঙ্কা সফরেও দল কাটিয়ে উঠতে পারেনি সেই ব্যর্থতা। দলের অবস্থা নাজুক, অন্যদিকে তামিম ইকবালের অবস্থা ভয়াবহ। দেশ সেরা এই ওপেনারের ব্যাটে রান আসছে না। তাছাড়া তার আউটের ধরণও ঠিক তামিমসুলভ হচ্ছে না। নেপথ্যে কারন কি? শোধরানোর উপায়টাই বা কি? এসব প্রশ্নের উত্তরের জন্য তামিমের আস্থা সেই হাথুরুসিংহেই! সাবেক এই গুরুর কাছ থেকে তামিমকে দেখা গেল পরামর্শ নিতে।
টাইগারদের সাবেক কোচ হাথুরুর সঙ্গে বেশ কয়েকজন ক্রিকেটারের সম্পর্ক ভালো ছিল না বলে শোনা গিয়েছিল তিনি বাংলাদেশে অবস্থানকালেই। তবে উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান তামিমের সাথে তার সুসম্পর্কও অজানা ছিল না। এখন প্রতিপক্ষ দলের কোচ হলেও তার কাছেই পরামর্শ নিতে ছুটে যাওয়া দেখে সেটা আরও একবার প্রমাণ হল।
লঙ্কানদের বিপক্ষে তৃতীয় ম্যাচে মাঠে নামার আগে কলম্বোর হোটেল তাজে অবস্থান করছে দুই দল। সেখানেই সাবেক কোচের সঙ্গে পরামর্ম নেয়ার মুহুর্তে তামিমের চোখে মুখে দেখা গেল লুকোনো হতাশা। যেন তা প্রকাশ করতে চাচ্ছেন না। নিরবেই নিজেকে ছাড়া থেকে বের করে আনতে পরিশ্রম করে যাচ্ছেন বাংলাদেেেশর হয়ে ওয়ানডে প্রথম ছয় হাজার রান পূর্ণ করা এই ব্যাটসম্যান।
মারকাটারি ব্যাটসম্যান হিসেবেই খ্যাতি কুড়িয়েছিলেন তিনি। দলের প্রয়োজনে যে কোনভাবে নিজের খেলার ধরণেও আনতে পারেন পরিবর্তণ। কিন্তু এখন কোথায় সেই তামিম? ক্রিকেটে সবারই একটা ভালো সময় থাকে। তখন তাকে নিয়েই শুরু হয় একগাদা প্রশংসা। তামিম নিজেও তা পেয়েছেন। এখন ঠিকই মুদ্রার উল্টোপিঠটাও দেখছেন এই ওপেনার। একসময়ের ড্যাসিং ওপেনার এখন দলের হয়ে খেলছেন কেন, এমন প্রশ্নও উঠছে। কিন্তু তামিম জানেন, কিভাবে সমালোচকদের মুখ বন্ধ করতে হয়। সেজন্য পথ একটাইÑভালো খেলা, রান পাওয়া।
২০১৯ সালে এখন পর্যন্ত ১৭টি একদিনের ম্যাচ খেলেছে বাংলাদেশ। প্রতিটি ম্যাচেই ইনিংস উদ্বোধন করেছেন এই বাঁহাতি ব্যাটসম্যান। ১৭ ইনিংসে তার ব্যাট থেকে এসেছে মাত্র ৪৪০ রান। গড় মাত্র ২৫.৮৮, যা তামিমের নামের সাথে একদমই বেমানান। সর্বশেষ ১৭ ইনিংসের কোনোটিতেই তিন অঙ্ক ছুঁতে পারেননি। অর্ধশতক করেছেন ৩টি। ইনিংস সর্বোচ্চ রান ৮০। এখানেও ধীর গতিতে খেলার একটি অভিযোগ আছেই। সর্বশেষ ৬ ম্যাচেই বোল্ড আউট হয়েছেন তামিম। যা কিনা কোনো বাংলাদেশি ব্যাটসম্যানের টানা বোল্ড আউট হওয়ার লজ্জার রেকর্ড। দেশের হয়ে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক এই ব্যাটসম্যানের আউট হওয়ার ধরণগুলোও ছিল দৃষ্টিকটু।
নিজের সর্বোচ্চটা দিয়ে চেষ্টা করেও সফল হতে পারছেন না। টানা এমন ব্যর্থতা হতাশ তামিমও। ইংল্যান্ডেই থাকতেই জানিয়েছিলেন, ব্যাটিং কোচ ম্যাকেঞ্জি বলেছেন তার কৌশলে খুব একটা ত্রুটি নেই। এবার তাই ব্যর্থতা থেকে বেরিয়ে আসতে তামিম বেঁছে নিয়েছেন পুরাতন গুরু হাথুরুসিংহেকে। এই ফর্মুলা কাজে লাগবে কিনা, কে জানে। সময়ের হাতে ছেড়ে দেয়াই ভালো। তবে যেই পদ্ধতিতেই হোক, তামিমের ফেরার দিকে তাকিয়ে বাংলাদেশের ক্রিকেটপ্রমীরা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: তামিম

২৫ অক্টোবর, ২০১৯
৪ জুলাই, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন