Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৬ আশ্বিন ১৪২৬, ২১ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী

‘পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা ঈমানের অঙ্গ’ স্লোগানে জনগণকে পরিচ্ছন্নতায় উদ্বুদ্ধ করতে হবে

মাদরাসা শিক্ষক-কর্মচারী ও নেতৃবৃন্দকে জমিয়াতুল মোদার্রেছীনের আহ্বান

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১ আগস্ট, ২০১৯, ১২:০০ এএম

দেশের সব মাদরাসা শিক্ষক-কর্মচারী ও নেতৃবৃন্দকে নিজ নিজ এলাকার নগর কর্তৃপক্ষের সাথে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা অভিযানে সহযোগিতার আহ্বান জানিয়েছেন বাংলাদেশ জমিয়াতুল মোদার্রেছীনের মহাসচিব প্রিন্সিপাল শাব্বির আহমদ মোমতাজী। সংগঠনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে গত মঙ্গলবার অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভা থেকে তিনি এ আহ্বান জানান।

মতবিনিময় সভায় বলা হয়, ‘পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা ঈমানের অঙ্গ’ এ স্লোগানকে সামনে রেখে প্রচারের মাধ্যমে সাধারণ জনগণকে পরিচ্ছন্নতার ব্যাপারে উদ্বুদ্ধ করতে হবে। একই সাথে জমিয়াতুল মোদার্রেছীনের সকল উপজেলা, জেলা ও মহানগরী পর্যায়ের নেতৃবৃন্দকে পৃথক পৃথক এলাকা/মহল্লাভিত্তিক দায়ত্বশীল নিয়োগ দানের মাধ্যমে ডেঙ্গুর বাহক এডিস মশার ব্যাপারে সাধারণকে সচেতন করে তোলার নির্দেশনা দেন তিনি। দেশের সকল মসজিদের ইমাম ও খতিবগণেকে এ ব্যাপারে মুসল্লিগণকে দিক-নির্দেশনামূলক নসিহত করার অনুরোধ করেন। মতবিনিময় সভায় আরো বক্তব্য রাখেন সংগঠনের যুগ্ম মহাসচিব প্রিন্সিপাল আ ন ম হাদিউজ্জামান, কেন্দ্রীয় নেতা প্রিন্সিপাল মাওলানা আব্দুল বাতেন, ঢাকা মহনগরীর সেক্রেটারী প্রিন্সিপাল মাওলান আবু জাফর মো. ছাদেক হাসান প্রমুখ।

এদিকে ডেঙ্গু ভাইরাসের বাহক এডিস মশা নিধন ও সর্বত্র পরিচ্ছন্নতা নিশ্চিতকরণের লক্ষ্যে গত সোমবার বাংলাদেশ জমিয়াতুল মোদার্রেছীনের স্ট্যান্ডিং কমিটি ও ঢাকা মহানগরীর উচ্চপর্যায়ের নেতৃবৃন্দের সমন্বয়ে সংগঠনের সভাপতি আলহাজ্ব এ এম এম বাহাউদ্দীন-এর সভাপতিত্বে ও মহাসচিব প্রিন্সিপাল শাব্বীর আহমদ মোমতাজীর সঞ্চালনায় এক সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় নেতৃবৃন্দ বলেন, বর্তমানে দেশের প্রায় সবখানেই এডিস মশার উপদ্রব বিধায় প্রতিদিনই ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগী ও মৃতের সংখ্যা ক্রমশ বেড়েই চলছে। এর প্রধান কারণ জলাবদ্ধতা ও অপরিচ্ছন্ন পরিবেশ। দেশের মানুষের এমন দুর্দিনে নিশ্চয়ই সকলের পাশে আমাদের দাঁড়ানো প্রয়োজন এবং যাতে মফস্বল থেকে শুরু করে মহানগরী পর্যন্ত সকল স্থানে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা নিশ্চিত হয় সেজন্য সরকার কতৃক নির্ধারিত প্রতিষ্ঠানসমূহকে সকলের সর্বাত্মক সহযোগিতা করা উচিৎ। সভায় নেতৃবৃন্দ ঢাকা মহানগরীকে পরিচ্ছন্ন ও ডেঙ্গু ভাইরাসমুক্ত করার লক্ষ্যে সর্বসাধারণ এবং দায়িত্বশীলদের সচেতন ও উদ্বুদ্ধকরণের জন্য ঢাকা মহানগরীকে ৮টি জোনে বিভক্ত করে প্রত্যেক জোনের জন্য একজন করে দায়িত্বশীল নিয়োগ দেন। সভা শেষে এ ভাইরাসে আক্রান্তদের জন্য ও দেশের সকল জণগণের সুস্বাস্থ্য কামনা করে আল্লাহ পাকের দরবারে দুয়ার মাধ্যমে সভা সমাপ্ত হয়।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: জমিয়াতুল মোদার্রেছীন


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ