Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ২০ অক্টোবর ২০১৯, ০৪ কার্তিক ১৪২৬, ২০ সফর ১৪৪১ হিজরী

গণতান্ত্রিক বাম ঐক্যের ঘেরাও কর্মসূচিতে পুলিশের বাধা

ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে ব্যর্থ স্বাস্থ্যমন্ত্রী ও দুই মেয়রের পদত্যাগ দাবি

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১ আগস্ট, ২০১৯, ৪:৪৩ পিএম

গণতান্ত্রিক বাম ঐক্যের ঢাকা সিটি কর্পোরেশন দক্ষিণ ঘেরাও কর্মসূচিতে বাধা দিয়েছে পুলিশ। মিছিলটি ঢাকা সিটি কর্পোরেশন (দক্ষিণ) প্রধান ভবন ঘেরাও এ বাধা পেয়ে গোলাপ শাহ মাজার থেকে একটু দূরে সমাবেশ করে।
আজ গণতান্ত্রিক বাম ঐক্য ঢাকা সিটি কর্পোরেশন দক্ষিণ ঘেরাওয়ের এক কর্মসূচি পালন করে। প্রেসক্লাবের সামনে গণজমায়েত শেষে মিছিল শুরু হয়। মিছিলটি তোপখানা রোড, পল্টন, গোলাপ শাহ মাজার হয়ে সিটি কর্পোরেশনের সামনে গিয়ে পুলিশী বাধার মুখে পড়লে সেখানেই এক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।
সমাবেশে দুর্নীতি ও অযোগ্যতার অভিযোগ এনে দুই সিটি মেয়র ও স্বাস্থ্যমন্ত্রীর পদত্যাগ দাবি করেছেন গণতান্ত্রিক বাম ঐক্য নেতৃবৃন্দ। আগামী ৭২ ঘন্টার মধ্যে যদি পদত্যাগ না করে আগামীতে কঠোর কর্মসূচি দিতে বাধ্য হবে বলেও হুশিয়ারি দেয়া হয় সমাবেশ থেকে।
সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন গণতান্ত্রিক বাম ঐক্যের সমন্বয়ক ও বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (মার্কসবাদী)’র সাধারণ সম্পাদক এম.এ সামাদ। সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশের সাম্যবাদী দলের সাধারণ সম্পাদক হারুন চৌধুরী, সমাজতান্ত্রিক মজদুর পার্টির সাধারণ সম্পাদক ডা. সামছুল আলম, এসডিপি’র আহবায়ক আবুল কালাম আজাদ, বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি মার্কসবাদী’র কেন্দ্রীয় নেতা শামসুল হক সরকার, সাম্যবাদী দলের কেন্দ্রীয় নেতা আবু মাছুম, সমাজতান্ত্রিক মজদুর পার্টির কেন্দ্রীয় নেতা সিরাজুল ইসলাম মাস্টার, এসডিপি’র কেন্দ্রীয় নেতা সজল ও গণতান্ত্রিক বাম ঐক্যের কেন্দ্রীয় ও ঢাকা মহানগর নেতৃবৃন্দ।
সাম্যবাদী দলের সাধারণ সম্পাদক হারুন চৌধুরী তার বক্তব্যে দুর্নীতি ও অযোগ্যতার কারণে দুই সিটি মেয়র ও স্বাস্থ্যমন্ত্রীর পদত্যাগ দাবি করেন।
সমাজতান্ত্রিক মজদুর পার্টির সাধারণ সম্পাদক ডা. সামছুল আলম বলেন দুই সিটি কর্পোরেশনের সীমাহীন দুর্নীতি লুটপাটের কারণে ডেঙ্গু মহামারী আকার ধারন করেছে।
এসডিপি’র আহবায়ক আবুল কালাম আজাদ বলেন, অনির্বাচিত সরকার কোনদিন জনকল্যাণমুখী হতে পারে না। ডেঙ্গুতে মানুষের প্রাণহানিই এটার বড় উদাহরণ।
সভাপতির বক্তব্যে ডা. এম এ সামাদ বলেন, অবিলম্বে ডেঙ্গু আক্রান্ত সকল ব্যক্তির চিকিৎসার দায়িত্ব সরকারকেই নিতে হবে এবং নিহতদের ক্ষতিপূরণ দিতে হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ