Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ২৬ আগস্ট ২০১৯, ১১ ভাদ্র ১৪২৬, ২৪ যিলহজ ১৪৪০ হিজরী।

ঈদ কেন্দ্রিক চিকিৎসা সেবা ও মানুষের করণীয় বিষয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নির্দেশনা

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৭ আগস্ট, ২০১৯, ৮:০৬ পিএম

রাজধানী ঢাকায় ক্রমবর্ধমান ডেঙ্গু জ্বরের প্রকোপ মোকাবেলার লক্ষ্যে নিয়মিত আলোচনা বুধবারও অনুষ্ঠিত হয়েছে। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের ডেঙ্গু সচিবালয়ে এ সভায় উপস্থিত ছিলেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক প্রফেসর ডা. আবুল কালাম আজাদ, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের রোগ নিয়ন্ত্রণ শাখার পরিচালক প্রফেসর ডা. সানিয়া তহমিনা, এমআইএস পরিচালক ডা. সমীর কান্তি সরকার, হাসপাতাল সার্ভিস ম্যানেজমেন্টের লাইন ডিরেক্টর ডা. সত্যকাম চক্রবর্তী, জাতীয় ম্যালেরিয়া নির্মূল ও এডিস বাহিত রোগ নিয়ন্ত্রণ কর্মসূচী কর্মকর্তা ডা. এমএম আকতারুজ্জামান এবং স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা।

সভায় ঈদের ছুটিতে যারা গ্রামের বাড়িতে ঈদ করতে যাবেন তাদের করণীয় হিসেবে বলা হয়েছে- বাড়ি, অফিস, সকল প্রতিষ্ঠানে বিশেষ করে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহের টয়লেটের কমোড ঢেকে দেওয়া, রেফ্রিজারেটরের ট্রে’র পানি ফেলে শুকিয়ে রাখা, এয়ার কন্ডিশনারের পাইপের পানি সহ যে কোন পানি পরিষ্কার রাখা, বালতি, বদনা, হাড়িপাতিল, ড্রাম, গামলা, ঘটি-বাটি ইত্যাদির পানি ফেলে পরিষ্কার করে উল্টিয়ে রাখা, বারান্দা ও বাসার ছাদের উপর রাখা ফুলের টবের ট্রে’র পানি ফেলে পরিষ্কার করে উল্টিয়ে রাখা এবং পানির ট্যাংকের ঢাকনা বন্ধ করে রেখে যাওয়ার কথা বলা হয়েছে।

এদিকে ঈদের ছুটিতে সকল সরকারি-বেসরকারী হাসপাতালের হেল্প ডেস্ক খোলা রাখার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। একই সঙ্গে ঈদের দিন কমিউনিটি ক্লিনিকের কমিউনিটি হেলথ কেয়ার প্রভাইডাররা (সিএইচসিপি) অন-কল এ চিকিৎসা কাজে দায়িত্বরত থাকবেন। স্থানীয় কোন রোগীর যে কোন সমস্যায় সিএইচসিপিদের প্রদানকৃত মোবাইল নম্বরে যোগাযোগ করতে বলা হয়েছে।

এছাড়া ডেঙ্গু রোগীর চিকিৎসা সেবা নিশ্চিতকরণে মাঠ পর্যায়ে সার্বক্ষণিক মনিটরিং চালু রাখা হয়েছে, বাংলাদেশ মেডিসিন সোসাইটি-এর সহযোগিতায় ২৬ টি জেলার সিভিল সার্জন ও সংশ্লিষ্ট আরএমও, মেডিসিন ও শিশু বিশেষজ্ঞের অংশগ্রহনে ডেঙ্গু ম্যানেজমেন্ট গাইডলাইন নিয়ে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়েছে। ডেঙ্গু রোগীর চিকিৎসা সেবা নিশ্চিতকরণে সরকারি হাসপাতালসমূহে ৩৪০ টি আইসিইউ বেড ও ৩৩৫ টি ডায়ালাইসিস ইউনিট চালু আছে। এছাড়াও বেসরকারি হাসপাতালসমূহেও এই সেবা চালু আছে। একই সঙ্গে সকল বিমানবন্দর, স্থলবন্দর, নৌ ও সমুদ্র বন্দরসমূহে এক্স-স্ট্যান্ডের মাধ্যমে ডেঙ্গু রোগ প্রতিরোধে বিশেষ সতর্কতা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন