Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২ আশ্বিন ১৪২৬, ১৭ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী।

‘আমরা জন্তুর মতো খাঁচাবন্দি’

অমিত শাহকে মেহবুবা মুফতির মেয়ের চিঠি

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৭ আগস্ট, ২০১৯, ১২:০১ এএম

কাশ্মীর উপত্যকার অবরুদ্ধ পরিস্থিতি দ্বাদশ দিনে পড়ল গতকাল শুক্রবার। এখনও জম্মু ও কাশ্মীরের শীর্ষস্থানীয় মূলধারার রাজনৈতিক নেতারা গ্রেফতার অবস্থাতেই রয়েছেন। যাদের গ্রেফতার করা হয়েছে তাদের মধ্যে উপত্যকার দু’জন প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী - মেহবুবা মুফতি ও ওমর আবদুল্লাও রয়েছেন। এ বিষয়ে ভারতের কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে সরাসরি চিঠি লিখলেন পিডিপি নেত্রী মেহবুবা মুফতির মেয়ে ইলতিজা জাভেদ। তিনি চিঠিতে অভিযোগ করেন যে, আবারও গণমাধ্যমের সাথে কথা বললে তাকে ‘ভয়াবহ পরিণতির হুমকি দেওয়া হয়েছে’।
মেহবুবার মেয়ে লেখেন, গত ১৫ আগস্ট দেশের বাকি অংশগুলি ভারতের স্বাধীনতা দিবস উদযাপন করলেও, কাশ্মীরিরা জন্তুর মতো খাঁচাবন্দি হয়ে রয়েছেন এবং তারা মৌলিক মানবাধিকার থেকে বঞ্চিত হয়েছেন। তিনি বলেন যে, তার বাড়ির দরজা থেকে তার সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে আসা মানুষজনকে ফিরিয়ে দেওয়া হচ্ছে এবং তাকেও বাড়ি থেকে এক পাও বেরোতে দেওয়া হচ্ছে না। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে লেখা তার চিঠিতে তাকে আটক করে রাখার কারণ জানতে চেয়ে তিনি বলেন যে, নিরাপত্তা কর্মীরা তার আটক হওয়ার কারণ হিসাবে গণমাধ্যমের সামনে সাক্ষাৎকার দেওয়ার কথা উল্লেখ করেছেন। ‘আমি আবার কথা বললে আমাকে মারাত্মক পরিণতিরও হুমকি দেওয়া হয়েছে,’ চিঠিতে একথাও লেখেন তিনি ।
কাশ্মীরে যোগাযোগের মাধ্যমগুলি বন্ধ থাকায় তিনি আরো একটি ভয়েস নোট প্রকাশ করেছেন। জম্মু ও কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদার অবলুপ্তি এবং এটিকে দুটি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে বিভক্ত করার ঐতিহাসিক সিদ্ধান্ত নেওয়ার পর থেকেই একরকম বিচ্ছিন্ন অবস্থায় রয়েছে জম্মু ও কাশ্মীর। জম্মু ও কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতির মেয়ে তার দ্বিতীয় ভয়েস মেসেজে অভিযোগ করেছেন যে, তার মা গ্রেফতার হওয়ার কয়েক দিন পরে তাকে তার বাড়িতে আটক করা হয়েছে। তিনি অডিও বার্তায় বলেছেন, ‘আমার সঙ্গে একজন অপরাধীর মতো আচরণ করা হচ্ছে এবং আমি নিয়মিত নজরদারির মধ্যে রয়েছি। আমি অন্য যেসব কাশ্মীরিদের সঙ্গে কথা বলেছি তাদের সঙ্গে সঙ্গে আমারও প্রাণহানির ভয় রয়েছে।’
ন্যাশনাল কনফারেন্স নেতা ওমর আবদুল্লার পাশাপাশি গত সপ্তাহের রোববার মধ্যরাত থেকে গৃহবন্দি করে রাখা মেহবুবা মুফতিকে গ্রেফতার করে পরের দিন তার শ্রীনগরের বাড়ি থেকে কাছের সরকারি গেস্ট হাউসে নিয়ে যাওয়া হয়। আইএএস অফিসার তথা রাজনীতিবিদ শাহ ফয়সালকেও বুধবার দিল্লি বিমানবন্দরে আটক করে শ্রীনগরে ফেরত পাঠানো হয়, যেখানে তাকে জননিরাপত্তা আইনের আওতায় গৃহবন্দি করা হয়েছে।
ব্ল্যাকআউটের অংশ হিসাবে, কাশ্মীর উপত্যকায় ফোন পরিষেবা এবং ইন্টারনেট সংযোগ স্থগিত রয়েছে এবং কারফিউয়ের মতো বিধিনিষেধ কার্যকর রয়েছে। শীর্ষ কর্মকর্তারা যোগাযোগের জন্য স্যাটেলাইট ফোন ব্যবহার করছেন। জম্মু ও কাশ্মীর প্রশাসন জানিয়েছে যে কাশ্মীরে নিষেধাজ্ঞাগুলি পর্যায়ক্রমে সরানো হবে। পুলিশ বলেছে যে কাশ্মীরে আরও ‘কিছু সময়ের জন্য’ এই নিষেধাজ্ঞাগুলি চলবে। সূত্র : এনডিটিভি।



 

Show all comments
  • dhan ১৭ আগস্ট, ২০১৯, ২:১৭ এএম says : 0
    Everything will be normal gradually. Be patient.
    Total Reply(0) Reply
  • Hanif Gazi ১৭ আগস্ট, ২০১৯, ১০:১৮ এএম says : 0
    এই লোকের কি চিঠির ভাষা বুজের মত ক্ষমতা আছে বলে আপনি মনে করেন??
    Total Reply(0) Reply
  • Abul Kasem ১৭ আগস্ট, ২০১৯, ১০:১৮ এএম says : 0
    জবাব একদিন দিতে হবে। ক্ষমতা কয় দিন আর।
    Total Reply(0) Reply
  • Jonaki Aminul ১৭ আগস্ট, ২০১৯, ১০:২৯ এএম says : 0
    সারা বিশ্বে চলছে নীল নকশায় পরিকল্পিত মুসলিম গণহত্যা
    Total Reply(0) Reply
  • Md Kamrul Islam ১৭ আগস্ট, ২০১৯, ১০:৩০ এএম says : 0
    May Allah bless you
    Total Reply(0) Reply
  • Amzad Ali ১৭ আগস্ট, ২০১৯, ১০:৩৪ এএম says : 0
    হে আল্লাহ কাশ্মীর মুসলিমদের উপর শান্তি দান করুন। আর এতটুকু জানি আল্লাহু শক্তির উপর কোন শক্তি নেই। হে মানুষ তোমার মৃত্যু সুনিশ্চিত, কিসের তুমি এতো শক্তি শালী। - শুধু একবার ভাবো যে দিন তোমার মৃত্যু আসবে সেই দিন তোমার মৃত্যু কে ঠেকাবে - ভাবছেন। আর একটু ভাবুন আর একবার ভাবুন।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন