Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২ আশ্বিন ১৪২৬, ১৭ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী।

সংস্কারের অভাবে চলাচলে ভোগান্তি

সিরাজদিখানের শ্মশানখোলা-মিরাপাড়া সড়ক

ইসমাইল খন্দকার, সিরাজদিখান (মুন্সীগঞ্জ) থেকে : | প্রকাশের সময় : ১৯ আগস্ট, ২০১৯, ১২:০১ এএম

মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখান উপজেলার রাজানগর বাজার শ্মশানখোলা থেকে তেঘুরিয়া মিরাপাড়া পর্যন্ত প্রায় দুই কিলোমিটার রাস্তা সংস্কারের অভাবে চলাচলের অনুপোযোগী হয়ে পড়েছে। দীর্ঘদিন যাবৎ রাস্তাটি খানা খন্দে বেহাল অবস্থায় থাকার কারণে ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে সাধারণ মানুষসহ স্কুল কলেজ পড়–য়া ছাত্রছাত্রীদের।
সরেজমিনে দেখা যায়, শ্মশানখোলা থেকে তেঘুরিয়া কাঁচা রাস্তাটি প্রায় ছয় বছর পূর্বে মানুষ চলাচলের জন্য ইটের সলিং করা হয়। কিন্ত রাস্তাটি চলাচলের জন্য একেবারেই অনুপযোগী হয়েছে পড়েছে। খানিক পর পর ছোট বড় গর্ত সৃষ্টি হওয়ার কারণে বৃষ্টির পানি জমে থাকে। তাই রাস্তাটি দ্রæত সংস্কারের দ্বাবী জানান স্থানীয়রা।
রাজানগর সৈয়দপুর ইউনিয়ন উচ্চ বিদ্যালয়ের পরিচালনা পরিষদের সদস্য সৈয়দ আনোয়ার হোসেন বাদশা বলেন, মুমূর্ষু রোগীদের যাতায়াতে ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে। এবং স্কুল কলেজের শিক্ষার্থীদের দুর্ভোগ চারম আকার ধারন করেছে। একটু বৃষ্টি হলেই শিক্ষার্থীরা স্কুলে আসেনা।
ররাজানগর ৮নং ওয়ার্ড ইউপি সদস্য মো. সারোয়ার লস্কর জানান, শ্মশানখোলা থেকে মিরাপাড়ার এই রাস্তার সংস্কার সম্পর্কে আমি চেয়ারম্যান সাহেবকে কয়েকবার অবহিত করেছি। কিন্ত তিনি কোন ব্যবস্থা নেন নি।
রাজানগর ইউপি চেয়ারম্যান মো. কামাল উদ্দিন হাদী জানান, এলাকাবাসী ও মেম্বার এ বিষয়ে আমাকে অবহিত করেছেন। যদি সরকারি বরাদ্দ আসে তাহলে এই রাস্তাটির কাজ ধরা হবে। সিরাজদিখান উপজেলা প্রকৌশলী শোয়াইব বিন আজাদ জানান, রাস্তাটির কথা শুনেছি, বরাদ্দ আসলে রাস্তার সংস্কার কাজ করা হবে। সিরাজদিখান উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মহিউদ্দিন আহম্মেদ জানান, উপজেলার জরাজীর্ণ রাস্তাগুলোর সংস্কার কাজ সম্পন্ন হয়েছে, আগামীতে বরাদ্দ আসলে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে রাজানগরের ওই রাস্তার কাজ করা হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সংস্কার


আরও
আরও পড়ুন