Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৫ আশ্বিন ১৪২৬, ২০ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী

ইউটার্ন মরণ ফাঁদ

মো. ওমর ফারুক, ফেনী থেকে | প্রকাশের সময় : ২২ আগস্ট, ২০১৯, ১২:০১ এএম

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের ফেনীর অংশে প্রায় ২৭ কিলোমিটার মহাসড়ক রয়েছে। এই সড়কের মাঝখানে ডিভাইডারের ফাঁকে ফাঁকে ১৫ থেকে ১৬ টি ইউটার্ন রয়েছে। মহাসড়কে অবস্থিত প্রত্যেকটা ইউটার্ন পয়েন্ট ঝুঁকিপূর্ণ। এসব ইউটার্ন দিয়ে প্রতিদিন ছোট বড় গাড়ি ঝুঁকি নিয়ে পার হতে দেখা যায়। ফলে বাড়ছে দুর্ঘটনা।
সরেজমিন দেখা যায়, মহাসড়কের ফেনীর অংশে ফতেহ্পুর রেলওয়ে ওভারপাসের উত্তরে স্টারলাইন পাম্প সংলগ্ন সড়কে দেড়শ মিটারের মধ্যে ডিভাইডারের ফাঁকে দুটি ইউটার্ন রয়েছে। এগুলো খুবই ঝুঁকিপূর্ণ। কয়েকজন গাড়ি চালকের সাথে কথা বলে জানা যায়, এই স্থান দিয়ে রেলওয়ে ওভারপাসে ওঠার জন্য মহাসড়কের মোহাম্মদ আলী বাজার থেকে গাড়ির গতি বাড়িয়ে চালাতে হয়। ইউটার্নে কোন নিরাপত্তা কর্মী না থাকায় কোন রকমের নিয়ম শৃঙ্খলা না মেনে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে গাড়িগুলি সড়ক ক্রসিং করে তড়িঘড়ি করে পার হতে দেখা যায়। এ কারণে পড়তে বিপাকে।

স্থানীয়রা জানান, ফেনী শহর থেকে ছেড়ে আসা শর্শদি আবুপুর ও বিরলীগামী গাড়ি ও চৌদ্দগ্রাম উপজেলার আলকরা, গাংরা ও পদুয়াগামী গাড়ি সড়কের ইউটার্ন দিয়ে ঝুঁকি নিয়ে পার হতে দেখা যায়। এর ফলে অনিয়ন্ত্রিত ভাবে সড়ক ক্রসিং করে পার হওয়ার কারণে এখানে অনেক দুর্ঘটনা ঘটেছে।

আরেকটি বড় ইউটার্ন রয়েছে মহিপাল ফ্লাইওভারের উত্তরে বিসিক ও পাঁচগাছিয়া গ্যাস কোম্পানী এলাকায়। এটি চার রাস্তার মোড় বেষ্টিত ইউটার্ন। এই ইউটার্ন দিয়ে প্রতিদিন সকাল বিকাল স্কুলের ছাত্রছাত্রীরা পার হয়। সড়কের পাশে রয়েছে বিসিক শিল্প নগরী এলাকা। সেখানে বড়বড় কাভার্ড ভ্যান, ট্টাক, পিকআপ গাড়ি দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে মালমাল নিয়ে যাওয়ার জন্য ভেতরে প্রবেশ করে।

নোয়াখালীগামী অনেক যাত্রীবাহী বাস-ট্টাক পাঁচগাছিয়া বাজার হয়ে চলে যায়। এছাড়াও মহসড়কের মহিপালের দক্ষিণে রামপুরে আরেকটি ঝুঁকিপূর্ণ ইউটার্ন রয়েছে। এই স্থানে ঈদের দ্বিতীয় দিন প্রাইভেট কার পার হওয়ার সময় অপরদিক থেকে আসা দ্রুতগামী বাসের সাথে ধাক্কা লেগে ঘটনাস্থলে ১ জনের মৃত্যু হয় এবং ৬ জন আহত হয়। মহাসড়কের রামপুর এলাকায় এর আগেও অনেক ভয়াবহ দুর্ঘটনা ঘটেছে। এদিকে মহাসড়কের আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ ইউটার্ন পয়েন্ট হচ্ছে লালপোল সড়ক। এখানে ১০০ মিটারের মধ্যে দুটি ইউটার্ন রয়েছে। একটি সোনাগাজী সড়ক হয়ে ফেনী শহরমুখী। অপরটি বড় গাড়ি পার হওয়ার জন্য খুলে দেয়া হয়েছে কয়েকমাস আগে। লালপোলের একটি ইউটার্ণে ৩ জন নিরাপত্তা কর্মী নিয়োগ দিয়েছে হাইওয়ে থানা। কিন্তু তারা সড়কে গাড়ির শৃঙ্খলা রক্ষায় হিমশিম খাচ্ছে প্রতিনিয়ত।

এবিষয়ে ফেনী সড়ক ও জনপদ (সওজ) বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী গাউছুল হাছান মারুফ বলেন, মহাসড়কের ইউটার্ন পয়েন্টগুলোতে নিরাপত্তার জন্য কর্মী নিয়োগের বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন আছে। তিনি আশা করছেন এই অর্থবছরের মধ্যে বরাদ্দ ফেলে নিরাপত্তা কর্মী নিয়োগ দেয়া হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মহাসড়ক

৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯
৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯
২৯ আগস্ট, ২০১৯
২৮ আগস্ট, ২০১৯
২০ আগস্ট, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ