Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২ আশ্বিন ১৪২৬, ১৭ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী।

ভূরুঙ্গামারীতে মামার শ্বশুর বাড়িতে বেড়াতে এসে লাশ হলো শিশু ফাহিমা

কুড়িগ্রাম জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২২ আগস্ট, ২০১৯, ৪:৪২ পিএম

কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারীতে মামার শ্বশুর বাড়িতে বেড়াতে এসে লাশ হলো বারো বছরের শিশু ফাহিমা।
জানা গেছে, উপজেলার জয়মনির হাট ইউনিয়নের বাউশমারী গ্রামের ফরহাদ আলীর কন্যা বাউশমারী ফাজিল মাদরাসার ৬ষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী ফাহিমা এক সপ্তাহ আগে মামীর সাথে মামার শ্বশুর বাড়ি সদর ইউনিয়নের কামাতআঙ্গারীয়া গ্রামে গ্রাম পুলিশ জহির উদ্দিনের বাড়িতে বেড়াতে আসে।
বুধবার দিবাগত রাতে জহিরের বাড়ি থেকে মোবাইলে মেয়েটি অসুস্থতার খবর জানিয়ে তার বাবাকে খবর দেয়া হয়। খবর পেয়ে মেয়ের বাবা, মামা হাফিজুর রহমান, মা মর্জিনা সহ অন্যান্যরা এসে তাকে বিছানায় শোয়া মৃত অবস্থায় দেখতে পায়। ফাঁসি দিয়ে সে আত্মহত্যা করেছে বলে তার আত্মীয় স্বজনকে জানানো হয়। এ সংবাদ পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে লাশের সুরৎহাল রিপোর্ট তৈরী করে লাশ ময়না তদন্তের জন্য বৃহস্পতিবার কুড়িগ্রাম জেনারেল হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করে।
মেয়েটির মামা হাফিজুর রহমান জানায়, মেয়েটির আত্মহত্যার প্রশ্নই আসেনা। তাকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে।
অপরদিকে ভূরুঙ্গামারী থানার অফিসার ইনচার্জ ইমতিয়াজ কবির জানান, আত্মহত্যা সম্পর্কে কিছুটা অসংগতি লক্ষ্য করা গেছে। এ ব্যাপারে ইউডি মামলা করা হয়েছে। ময়না তদন্ত রিপোর্ট পেলেই আইনী ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: রহস্যজনক মৃত্যু


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ