Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৫ আশ্বিন ১৪২৬, ২০ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী

রুমিন ফারহানার ১০ কাঠা প্লটের আবেদনের ইস্যুতে ফেইসবুকে আলোচনা সমালোচনার ঝড়

শাহেদ নুর | প্রকাশের সময় : ২৫ আগস্ট, ২০১৯, ৪:২৮ পিএম

বিএনপি মনোনীত নারী সংসদ সদস্য ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানা গৃহায়ণ ও গণপূর্ত মন্ত্রী শ. ম. রেজাউল করিমের বরাবরে ১০ কাঠার প্লট চেয়ে আবেদন করেছেন। আবেদনপত্রে রুমিন ফারহানা লিখেছেন, ‘ঢাকাস্থ পূর্বাচল আবাসিক এলাকায় ১০ কাঠার প্লটের প্রয়োজন। ঢাকা শহরে আমার কোন জায়গা/ফ্ল্যাট, জমি নাই। ওকালতি ছাড়া আমার অন্য কোন ব্যবসা/পেশা নাই। আমার নামে ১০ কাঠা প্লট বরাদ্দের জন্য সুব্যবস্থা করে দিতে আপনার মর্জি হয়।’ প্লটটি পেলে তিনি 'চিরকৃতজ্ঞ' থাকবেন বলেও আবেদনপত্রে উল্লেখ করেছেন। ইতোমধ্যেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে তার আবেদনপত্রটি ভাইরাল হয়ে গেছে। শুরু হয়েছে আলোচনা সমালোচনার ঝড়। কেউ কেউ বিষয়টিতে নেতিবাচক দৃষ্টিতে দেখছেন। করছেন সমালোচনা। আবার কেউ কেউ এটা স্বাভাবিক মনে করছেন। তারা এখানে সমালোচনার কোন কারণই খুঁজে পাচ্ছে না।

ফেইসবুকে ইসরাত জাহান নিপু লিখেছেন, ‘অবৈধ সংসদের নিকট চাওয়ই তো অবৈধ। লোভের উর্ধে উঠতে পারলেন না....। দু:খজনক।’

‘যতক্ষণ সংসদ সদস্য আছে, ততক্ষণ সুযোগ নিতে দোষ কিসের? সংসদ সদস্য হয়ে অন্যায়ের বিরুদ্ধে কথা বলা কি দোষের? অন্যায় কে অন্যায় বলে ট্রিট না করলে, একদিন এ অন্যায় পুরো সমাজকে গ্রাস করবে। ব্যক্তি চিন্তা না করে দেশের কথা ভাবুন, আমি-আপনি না হোক পরবর্তী প্রজন্ম তো সূখে থাকবে। অন্যায়কে সাপোর্ট দিতে দিতে দেশটা যে পরনির্ভর হতে চলছে সেদিকেও একটু খেয়াল করবেন।’ - লিখেছেন আকমল হোসাইন।

নুরুল হকের প্রশ্ন, ‘একেই বলে স্বার্থ! একেই অঙ্গে বহুরূপী! বিএনপির হায়ারিং করা প্লেয়ার রুমিন ফারহানা একটি প্লটের জন্য বর্তমান সরকারের মাননীয় মন্ত্রীর কাছে আকুল আবেদন করছেন, এবং সারাজীবন কৃতজ্ঞ থাকিবেন! প্রমানিত সত্য - মুখে যা বলে তা লোক দেখানো মিথ্যাচার, সংসদ অবৈধ বলে বলে বেড়ানো ফারহানা এখন এই সরকারের কাছে চিরজীবন কৃতজ্ঞ থাকবে একটি প্লট বরাদ্দ দিলে?’

‘যে মুখ দিয়ে বক্তৃতায় বলে সংসদ অবৈধ। সেই আবার কোন মুখে জাতীয় সংসদের লোগো ব্যবহার করে আবেদন করে আমাকে ১০ কাঠা প্লট বরাদ্দ দেওয়া হোক!’ - বিস্ময় প্রকাশ করে লিখেন আবির হাসান।

রোকসানা আক্তারের জিজ্ঞাসা, ‘সরকারের সামর্থ থাকলে দিবেন তাতে আমাদের সমস্যা কি? হিংসা ভালো নয়।’

‘এইখানে খারাপের কিছু আছে? আর এটা ফাঁস করা উচিত হয় নাই।’ - লিখেছেন ইয়াসিন মিয়া।

কবি আয়শা জেবিন লিখেন, ‘সংসদ অবৈধ কিন্তু সংসদের কাছে প্লটের আবেদন বৈধ। সরকারি প্লট বৈধ হা হা হি হি হি। অনেককেই দেখেছি সরকারের উপর দারুণ ক্ষিপ্ত, কিন্তু সরকারি সব সুবিধায় অনুরক্ত।’

‘অবৈধ নির্বাচনের বৈধ এমপি! নিজ স্বার্থের জন্য সব কিছুই তোমার নিকট বৈধ! তাই নয় কি? কষ্ট পান নি তো? প্লিজ মাপ করবেন।’ - আবেদনের ছবিটি দিয়ে ক্যাপশনে লিখেন এস মাহমুদ।

 



 

Show all comments
  • Siraj ২৫ আগস্ট, ২০১৯, ৫:৪৯ পিএম says : 0
    সবাই দেশটাকে পৈত্রিক সম্পত্তি মনে করে। রুমিন ফারহানাও তাঁর উর্ধে নয়। এটা পচে যাওয়া রাজনীতির ফসল।
    Total Reply(0) Reply
  • Siraj ২৫ আগস্ট, ২০১৯, ৫:৪৯ পিএম says : 0
    সবাই দেশটাকে পৈত্রিক সম্পত্তি মনে করে। রুমিন ফারহানাও তাঁর উর্ধে নয়। এটা পচে যাওয়া রাজনীতির ফসল।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ