Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৭ আশ্বিন ১৪২৬, ২২ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী

ধরা ৩০ বছর পর

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৬ আগস্ট, ২০১৯, ১২:০২ এএম

মানুষ একটি পায় না, আর তিনি সবার চোখ এড়িয়ে একসঙ্গে তিনটি সরকারি চাকরি করেছেন। আর এ ঘটনা ঘটেছে ভারতে। সুরেশ রাম নামের ওই ব্যক্তি একই সঙ্গে নির্মাণ দফতর, পানিবণ্টন দফতর এবং বাঁধ মেরামত দফতরে কাজ করতেন।

বিহারের কিশোরগঞ্জে নির্মাণ দফতরের সুরেশ রাম সহকারি ইঞ্জিনিয়ার ছিলেন। বাঁকা জেলার বেলহার বøকে করতেন পানিবণ্টন দফতরর কাজ। আর তৃতীয় চাকরি ছিল সুপাউলে বাঁধ মেরামত বিভাগে।
সুরেশ ১৯৮৮ সালে প্রথম পাটনায় সরকারি দফতর নির্মাণ বিভাগের জুনিয়র ইঞ্জিনিয়ারের কাজ করেন। সেখানে কাজ করতে করতেই তার হাতে আসে আরও একটি চিঠি। ১৯৮৯ সালে পানিসম্পদ দফতরর চাকরিও পেয়ে যান। আর তার কিছুদিনের মধ্যেই বাঁধ মেরামত বিভাগে কাজের জন্যও ডাক পেয়ে যান। এই দুটি চাকরির জন্য আগে পরীক্ষা দিয়ে রেখেছিলেন।

সুরেশ ধরা পড়েন গত মাসে। দেশটির কম্প্রিহেনসিভ ফিন্যান্সিয়াল ম্যানেজমেন্ট সিস্টেমের কারণেই তিনি আটকে যান। গত বছরে বিহার সরকার এই কম্প্রিহেনসিভ ফিন্যান্সিয়াল ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম বা ঈগঋঝ প্রথা চালু করে। রাজ্যের একাধিক জায়গায় আর্থিক কারচুপি ধরতেই মূলত এই উদ্যোগ।
গত মাসের শুরুতে কিশোরগঞ্জ নির্মাণ দফতরের ডেপুটি সেক্রেটারি সুরেশ রামকে তার চাকরির সব কাগজ জমা দিতে বলেন। তাতেই সামনে আসে কারচুপি। মামলা হওয়ার পর তিনি পালিয়ে বেড়াচ্ছেন। সূত্র : এএনআই।



 

Show all comments
  • Delwar Hossein ২৬ আগস্ট, ২০১৯, ১:০৩ এএম says : 0
    তুমি ৩০টি পরিবারের রুজি মারছ, তোমাকে থেরাপি দেওয়া হউক
    Total Reply(0) Reply
  • Azraf Tipu ২৬ আগস্ট, ২০১৯, ১:০৩ এএম says : 0
    বাহ্ তাকে পুরস্কৃত করা দরকার।
    Total Reply(0) Reply
  • Md Aliakbor ২৬ আগস্ট, ২০১৯, ১:০৪ এএম says : 0
    বুদ্ধি ব্যক্তি হিসেবে মেডেল দেওয়া হোক।
    Total Reply(0) Reply
  • Habib Raja ২৬ আগস্ট, ২০১৯, ১:০৪ এএম says : 0
    কি আজব দেশ কি আজব নিয়মনীতি
    Total Reply(0) Reply
  • Ashraf Islam ২৬ আগস্ট, ২০১৯, ১:০৪ এএম says : 0
    মানুষ পারে না এমন কিছু নাই
    Total Reply(0) Reply
  • Makhlukat Makhlukat ২৬ আগস্ট, ২০১৯, ১:০৫ এএম says : 0
    গুড এমনি হবে আর কেউ কেউ না খেয়ে থাকবে
    Total Reply(0) Reply
  • Morium Khatun Mitu ২৬ আগস্ট, ২০১৯, ১:০৫ এএম says : 0
    আমরা একখান চাকরি ই পাই না।আর উনি ৩ টা কেমনে পাইলো।
    Total Reply(0) Reply
  • Tareq Noman ২৬ আগস্ট, ২০১৯, ১:০৬ এএম says : 0
    ৩০ বছর ৩ টা চাকরি ম্যানেজ করে চালাতে পারছে এই জন্য তাকে পুরস্কৃত করা উচিত।
    Total Reply(0) Reply
  • Shamim Ahmed ২৬ আগস্ট, ২০১৯, ১:০৬ এএম says : 0
    ২ জনকে ৩০ বছর বেকার রাখার অপরাধে অর বাকি জীবন কারাগারে কাটালেও মাফ হবেনা
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন