Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৫ ফাল্গুন ১৪২৬, ০৩ রজব ১৪৪১ হিজরী

অধিকৃত পশ্চিম তীরে সেনা সংখ্যা বাড়িয়েছে ইসরাইল তেল আবিবে বন্দুক হামলার জের

প্রকাশের সময় : ১১ জুন, ২০১৬, ১২:০০ এএম

ইনকিলাব ডেস্ক : ফিলিস্তিনের অধিকৃত পশ্চিম তীরে কয়েক হাজার অতিরিক্ত সেনা মোতায়েন করেছে ইসরাইল। গত বৃহস্পতিবার ইসরাইলের সেনাবাহিনী এ ঘোষণা দেয় বলে খবরে বলা হয়।
ইসরাইলি পুলিশ বলেছে, পশ্চিম তীরের দুজন ফিলিস্তিনি গত বুধবার রাতে তেল আবিবের সারোনা বিপণিবিতান এলাকায় ক্রেতা ও রেস্তোরাঁয় লোকজনকে লক্ষ্য করে গুলি করে। এতে চারজন নিহত ও পাঁচজন আহত হয়। পরে ওই হামলাকারীদের আটক করা হয়। ইসারাইলি সেনাবাহিনী এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, পরিস্থিতি বিবেচনায় পশ্চিম তীরে কয়েক ব্যাটালিয়ন অতিরিক্ত সেনা মোতায়েন করা হয়েছে। এদের মধ্যে সেনাবাহিনীর পদাতিক ইউনিট ও স্পেশাল ফোর্সের সদস্যও রয়েছে। এর আগে রমজান মাসের জন্য ৮৩ হাজার ফিলিস্তিনির ইসরাইলে প্রবেশাধিকার বাতিল করেছে তেল আবিব।
ইসরাইলি প্রতিরক্ষা বিভাগের ইউনিট কোগাট জানিয়েছে, ইসরাইলে স্বজনদের সঙ্গে দেখা-সাক্ষাতের জন্য ৮৩ হাজার ফিলিস্তিনিকে যে বিশেষ অনুমতি দেয়া হয়েছিল তা বাতিল করা হয়েছে। গাজা উপত্যকার ফিলিস্তিনিদেরও ইসরাইলে প্রবেশ অনুমতি বাতিল করা হয়েছে। এমনকি তাদের বিদেশযাত্রা ও আল-আকসা মসজিদে নামাজের অনুমতিও বাতিল করা হয়েছে। এছাড়া হামলাকারী দুই যুবকের ২০৪ জন আত্মীয়ের ইসরাইলে কাজ করার অনুমতিপত্রও বাতিল করা হয়েছে। এমনকি তারা যে গ্রামের বাসিন্দা সে গ্রামটিতেও ফিলিস্তিনিদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। প্রসঙ্গত, গত বছর অক্টোবরে আল-আকসা মসজিদে প্রবেশকে কেন্দ্র করে ইসরাইল ও ফিলিস্তিনিদের মধ্যে সহিংসতা ছড়িয়ে পড়ে। এতে ২০৭ জন ফিলিস্তিনি ও ৩২ জন ইসরাইলি নিহত হয়েছে। হারেৎজ।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ