Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার, ১৬ অক্টোবর ২০১৯, ০১ কার্তিক ১৪২৬, ১৬ সফর ১৪৪১ হিজরী

পটুয়াখালীর গৃহবধূ ধর্ষণ মামলার বাদীর ওপর হামলার ৪ আসামী অস্ত্র ও গুলিসহ আটক

বরিশাল ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৯, ৪:৫০ পিএম

পটুয়াখালীর কলাপাড়া থানার আলোচিত গৃহবধু গণধর্ষণ-এর শিকার নির্যাতিতা মহিলার স্বামীকে পিটিয়ে হাত পা ভেঙ্গে দেয়ার ঘটনায় চারজনকে আটক করেছে বরিশালের র‌্যাব-৮। সে স্ত্রী ধর্ষন মামলার বাদী। আটকৃত মোঃ শাকিল মৃধা(২৭),মোঃ রবিউল ভূইয়া(২৫), মোঃ রবিউল হাওলাদার(৩৫) ও মোঃ সাইফুল ইসলাম(২৫ )কে থানায় হস্তান্তর সহ ফৌজদারী মামলা দায়ের করা হচ্ছে। র‌্যাব-৮ সদর দপ্তরে বৃহস্পতিবার এক সংবাদ সম্মেলনে এঘটনা জানান হয়।
আটকৃতরা গত ১৫ এপ্রিল রাতে কলাপাড়ার মোঃ সিদ্দিক হাওলাদারকে অস্ত্রের মুখে বেঁধে রেখে তার স্ত্রীকে বাড়ী থেকে তুলে নিয়ে রাতভর পালাক্রমে ধর্ষণ করে। পরবর্তীতে তাদের নামে মামলা হলে পুলিশ গ্রেফতার করে। কিন্তু জেল থেকে জামিনে বেরিয়ে গণধর্ষণ মামলার বাদী মোঃ সিদ্দিককে গত মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে ধূলাশার ইউনিয়নের চাপলী বাজারে আসামী শাকিল মৃধা সহ আরও ৮/১০ জন সন্ত্রাশীরা পিটিয়ে হাত পা ভেঙ্গে দেয়।
এ ঘটনায় র‌্যাব-৮ বরিশালÑএর একটি বিশেষ আভিযানিক দল বৃহস্পতিবার সকাল ৭টায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পটুয়াখালী শহরের নতুন বাজার সংলগ্ন ‘পানামা হোটেল’এর ৫ম তলা থেকে ৪জনকে আটক করেছে। কৌশলগত ভাবে ঘটনাস্থলের কাছে পৌছলে পালানোর চেষ্টাকালে র‌্যাব সদস্যরা ঘেরাও করে তাদেরকে আটক করে। এসময় মোঃ শাকিল মৃধর কক্ষের বিছানার তোষকের নিচ থেকে ১২ রাউন্ড গুলি সহ ১টি বিদেশী পিস্তল ও একটি ওয়ান শুটার গান এবং ৩৯০টি গোলাপি রংয়ের ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়।
প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা কলাপাড়ায় ধর্ষন মামলার বাদীর ওপর হামলার ঘটনা স্বীকার করেছে বলে র‌্যাব জানিয়েছে। এব্যাপারে র‌্যাব-৮’র ডিএডি মোঃ দেলোয়ার হোসেন বাদী হয়ে পটুয়াখালীর মহিপুর থানায় অস্ত্র ও মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে পৃৃথক মামলা দায়ের করছে বলে সংবাদ সম্মেলনে জানান হয়।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: গ্রেফতার


আরও
আরও পড়ুন