Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৪ অক্টোবর ২০১৯, ০৮ কার্তিক ১৪২৬, ২৪ সফর ১৪৪১ হিজরী

বিরামপুর পিয়াজের দাম কেজিতে ৩০ টাকা বৃদ্ধি

বিরামপর (দিনাজপুর) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯, ১২:০১ এএম

দিনাজপুরের হিলি বন্দর দিয়ে প্রতিদিন হাজার হাজার মেট্টিক টন কাঁচামাল ভারত থেকে আমদানি হচ্ছে। আমদানি থাকা সত্তে¡ও বাজারে পিঁয়াজ, রসুন, ঝাল, আদা দাম (ভারতের বাজারে) বেশি অজুহাতে ক্রেতাদের বোকা বানিয়ে লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে। সবছে বেশি বাড়ছে পেয়াজের দাম। একদিনে কেজিপ্রতি ৩০ টাকা। বিরামপুরসহ বিভিন্ন এলাকার বাজার ঘুরে জানা যায়, গ্রাম-গঞ্জের কৃষক কর্মহীন দিনমজুরের হাতে এ সময় কাজ থাকেনা। তাদের হাতে বাজার করার টাকা থাকে না। পরিবার পরিজন নিয়ে নিদারুন কষ্টে সময় পার করছে।

এতে নিম্নআয়ের মানুষেরা পড়েছে মহাবিপাকে। তারপরে বাজারে হু হু করে বাড়ছে পিঁয়াজ, রসুন, মরিচসহ প্রযোজনীয় দ্রব্যাদির দাম। এক শ্রেনীর অসাধু ব্যবসায়ী ভারতীয় আমদানি পন্যের উপর নির্ভরশীল পিয়াজ আমদানীতে কারসাজি কওে ভারতের বাজার বেশি অজুহাত দেখিয়ে দাম বাড়িয়ে দিয়েছে। খাবার অনুপোযোগি নিম্নমানের পিঁয়াজে বাজার সয়লাব। বাধ্য হয়ে বাজারে খারাপ পিঁয়াজ কিনতে হচ্ছে ক্রেতাদের। বাজার ঘুরে দেখা য়ায়, গত ৩/৪দিন পুর্বে যে পিয়াজ এর দাম ছিল কেজিপ্রতি ৩৫ টাক বর্তমানে ঐ পিঁয়াজ বাজারে বিক্রী হচ্ছে ৬৫ টাকায়। এক লাফে দাম বেড়েছে ৩০ টাকা।

বিরামপুর পৌর এলাকার পাইকাড়ী আড়ৎদার লিটন সরকার ও মোস্তাফিজুর রহমান জানান, হিলিতে প্রতিকেজি পিঁয়াজ ৫৫ টাকা দরে কিনে কেরিংসহ বিরামপুরে এনে প্রতি কেজিতে ৬৫ টাকায় বিক্রি করতে হচ্ছে। আরো জানা যায়, বর্তমানে প্রতিকেজি আদা-১৭০ টাকা, রসুন ১৮০ টাকা মরিচ-২৪০ টাকা, ও মৌসুমী শাকসবজির দামও চড়া।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন