Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার , ১৯ নভেম্বর ২০১৯, ০৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ২১ রবিউল আউয়াল ১৪৪১ হিজরী
শিরোনাম

আওয়ামীলীগ কাউন্সিলর দুই প্রার্থীর মাঝে সংঘর্ষ, আহত ১৪ জন

লালমোহন পৌরসভা নির্বাচন

ভোলা জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৯, ৫:৪১ পিএম

ভোলার লালমোহন পৌরসভা নির্বাচনে পৌর ২নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগ কাউন্সিলর প্রার্থী আনিচল হকের নির্বাচনী অফিস ও বাসায় হামলার অভিযোগ উঠেছে প্রতিপক্ষ আওয়ামীলীগ কাউন্সিলর প্রার্থী হেলালউদ্দিন হাওলাদারের বিরুদ্ধে।
বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় লালমোহন পৌরসভা ২নং ওয়ার্ড মিন্টু মিয়ার বাসার সামনে এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর ২নং ওয়ার্ড এলাকার নাডা বাড়িতে দুই কাউন্সিলর প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে কথাকাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে উভয় পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে। পরে থানা পুলিশের বাধায় পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়। এর কিছুক্ষণ পর পুনরায় কাউন্সিলর প্রার্থী আনিচল হকের অফিস ও বাসায় ভাঙচুর করে প্রতিপক্ষ কাউন্সিলর প্রার্থী হেলাল উদ্দিন হাওলাদারের কর্মী সমর্থকগণ। এতে কাউন্সিলর প্রার্থী আনিচল হকের স্ত্রীসহ ১৪জন আহত হয়। এরমধ্যে বেশিরভাগই নারী। পরে আবারো থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। বর্তমানে আহতরা লালমোহন সদর হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন।

কাউন্সিলর প্রার্থী আনিচুল হক অভিযোগ করে বলেন, নাডা বাড়িতে উভয় পক্ষের কর্মীদের মধ্যে কথা কাটাকাটির শেষে হেলালউদ্দিন কাউন্সিলরের কর্মীরা পুলিশের বেশ ধরে বাঁশি ফু দিয়ে আমার নির্বাচনী অফিস ও বাসা বাড়িতে হামলা-ভাঙচুর চালায়। এতে আমার স্ত্রীসহ ১৪জন আহত হন। বাসার সকল আসবাবপত্র ক্ষতিগ্রস্ত হয়। মহিলাদের স্বর্ণাংকার ছিনিয়ে নিয়ে যায়।

কাউন্সিলর প্রার্থী হেলালউদ্দিন হাওলাদার জানান, নাডা বাড়িতে উভয় পক্ষের কর্মীদের মধ্যে কথাকাটি হয়। পরে কথাকাটাকাটির জের ধরে আনিচল হকের কর্মীরা আমার বাসায় হামলা করতে এলে আমার মা বাধা দিলে তাকেসহ আরো কয়েকজনকে মারধর করে আহত করে। এসময় আমার মা গুরুত্বর আহত হন। বর্তমানে তিনি ভোলা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

লালমোহন থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মীর খায়রুল কবীর জানান, সংবাদ শুনে এএসপি (লালমোহন সার্কেল) রাসেলুর রহমান স্যারসহ ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনি। এ ব্যাপারে কোন অভিযোগ পাওয়া যায়নি। অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সংঘর্ষ


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ