Inqilab Logo

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারি ২০২১, ০৭ মাঘ ১৪২৭, ০৭ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

বাংলাদেশের ইতিহাসে সর্বকালের সর্বোচ্চ রেমিট্যান্স আহরণ- অর্থমন্ত্রী

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২ অক্টোবর, ২০১৯, ৬:৩৯ পিএম

২০১৯-২০ অর্থবছরের বাজেটে বৈধ চ্যানেলে রেমিট্যান্স প্রেরণকে উৎসাহিত করার জন্য ২ শতাংশ নগদ প্রণোদনার ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। তবে বিষয়টি পূর্ণাঙ্গভাবে কার্যকর করতে একটু সময় লেগেছে, কেননা এজন্য আমাদেরকে একটি সিস্টেম ডেভেলপ করতে হয়েছে। এই সিস্টেম ডেভেলপ করতেই আমাদের এ মাঝের সময়টি ব্যয় হয়েছে। তবে এই ঘোষণা দেওয়ার পর থেকেই বাংলাদেশ সরকার এবং বাংলাদেশ ব্যাংকসহ সংশ্লিষ্ট সকল পক্ষ দেশে রেমিট্যান্স প্রেরণকে অগ্রাধিকার দিয়ে নিবিড়ভাবে কাজ করে যাচ্ছে। অর্থমন্ত্রী বলেন, পৃথিবীর যে কোনো দেশ থেকে এখন কেউ রেমিট্যান্স পাঠায় তাহলে সে ২ শতাংশ হারে প্রণোদনা পাবেন। এর আগে ১ জুলাই থেকে এ পর্যন্ত যারা রেমিট্যান্স পাঠিয়েছেন তারাও এ প্রনোদনা পাবেন।

বুধবার (২ অক্টোবর) সচিবালয়ে সরকারি ক্রয়-সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের মাননীয় অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল এসব কথা বলেন। অর্থমন্ত্রী বলেন, গত তিন মাসে আমরা বাংলাদেশের ইতিহাসে সর্বকালের সর্বোচ্চ রেমিট্যান্স আহরণ করেছি। বৈধ চ্যানেলে রেমিট্যান্স প্রেরণকে উৎসাহিত করার জন্য ২শতাংশ নগদ প্রনোদনার ব্যবস্থা রাখায় প্রবাসীরা ইতোমধ্যে ইতিবাচক সাড়া দিয়েছেন। তার প্রমাণ হলো গত তিন মাসে আমরা রেমিট্যান্স অর্জন করেছি সাড়ে চার বিলিয়ন মার্কিন ডলার। যা পূর্বের তুলনায় প্রায় ১৬ শতাংশ বেশী।

আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেন, এখন থেকে ১৫শ’ ডলার পর্যন্ত রেমিট্যান্সের ক্ষেত্রে কোনো প্রশ্ন করা হবে না। এর বেশি হলেই কাগজ দিতে হবে। প্রতি লেনদেন ১৫শ’ ডলারের মধ্যে থাকলে দিনে যতবার ইচ্ছা প্রেরণ করতে পারবেন। প্রতি লেনদেনের জন্য ২ শতাংশ হারে প্রণোদনা পাবেন। আশা করছি, এর সুফলে রেমিট্যান্স এবার ১৮ থেকে ২০ বিলিয়ন ডলারে উন্নীত হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: অর্থমন্ত্রী


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ