Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার , ১৩ নভেম্বর ২০১৯, ২৮ কার্তিক ১৪২৬, ১৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪১ হিজরী

সাতক্ষীরায় যুবককে হত্যার দায়ে এক ব্যক্তির যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

সাতক্ষীরা থেকে স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৪ অক্টোবর, ২০১৯, ৬:৫৩ পিএম

সাতক্ষীরায় এক যুবককে বোমা মেরে হত্যার দায়ে মোফাজ্জেল হোসেন মোফা নামে এক ব্যক্তিকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড প্রদান করেছে আদালত।

সোমবার (১৪ অক্টোবর) সাতক্ষীরার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ ১ম আদালতের বিচারক এ রায় প্রদান করেন।

যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি মোফাজ্জেল হোসেন মোফা কলারোয়া উপজেলার পূর্বকোটা গ্রামের হোসেন আলী গাজীর ছেলে।

আদালত সূত্রে জানা যায়, জেলার কলারোয়া উপজেলার কেসমত ইলিশপুর গ্রামের খয়বর হোসেন মন্ডলের ছেলে তোফায়েল আহম্মেদ তুহিন (২৮) একই এলাকার বাহাউদ্দীনের সাথে মৎস্য ব্যবসা পরিচালনা করতেন। কিছুদিন পর তাদের ব্যবসায় লোকসান দেখা দেওয়ায় উভয়ের মধ্যে দ্বন্দ্ব বাধে। আর এই ব্যবসায়িক দ্বন্দ্বের জের ধরে বাহাউদ্দীন তার পার্টনার তুহিনকে মারার জন্য মোফাজ্জেল হোসেন মোফাসহ ৮-১০ জনকে ভাড়া করে। এক পর্যায়ে ২০০২ সালের ২৬ জানুয়ারি রাত ১১টার দিকে তুহিনের বাড়ির পাশে মসজিদের ধারে তাকে একা পেয়ে মোফাসহ তার সঙ্গীরা বোমা মেরে তাকে হত্যা করে। এ ঘটনার পরদিন নিহত তুহিনের চাচা মোশারফ হোসেন গাজী বাদী হয়ে কলারোয়া থানায় বাহাউদ্দীন, ঘাতক মোফাজ্জেল হোসেন মোফাসহ ১০ জনের নামে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

তদন্ত শেষে এ মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ১০ জন আসামির বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশিট প্রদান করেন। দীর্ঘ ১৭ বছর পর সোমবার ৯ জন সাক্ষীরা সাক্ষ্য গ্রহণ শেষে এ মামলায় বোমা মেরে হত্যার দায়ে অভিযুক্ত আসামি মোফাজ্জেল হোসেন মোফাকে যাবজ্জীবন কারাদ- প্রদান করে আদালত। এছাড়াও আসামিকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। অনাদায়ে তাকে আরও এক মাসের বিনাশ্রম কারাদ- প্রদান করা হয়।

তবে, এ মামলার অপর ৯ আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় আদালত তাদের বেকসুর খালাস প্রদান করেন।

মামলার রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী অতিরিক্ত পিপি শেখ আব্দুস সামাদ জানান, রায় ঘোষণার সময় আসামি মোফাজ্জেল হোসেন মোফা পলাতক ছিলেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ