Inqilab Logo

ঢাকা রোববার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২০, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ২০ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

শেখ রাসেলের ৫৫তম জন্মবার্ষিকী আজ

‘হৃদয়মাঝে শেখ রাসেল’ গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন প্রধানমন্ত্রীর

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৮ অক্টোবর, ২০১৯, ১২:০১ এএম

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ছোট ছেলে শেখ রাসেলের ৫৫তম জন্মবার্ষিকী আজ। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছোট ভাই শেখ রাসেল ১৯৬৪ সালের এই দিনে ধানমন্ডির ঐতিহাসিক স্মৃতি-বিজড়িত বঙ্গবন্ধু ভবনে জন্মগ্রহণ করেন। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট ঘাতকদের নির্মম বুলেট থেকে রক্ষা পাননি শিশু শেখ রাসেল। বঙ্গবন্ধুর সাথে নরপিশাচরা নির্মমভাবে তাকেও হত্যা করেছিল। তিনি ইউনিভার্সিটি ল্যাবরেটরি স্কুলের চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্র ছিলেন।

শেখ রাসেলের জন্মদিন উপলক্ষে আওয়ামী লীগের সহযোগী সংগঠনসহ বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন বিস্তারিত কর্মসূচি গ্রহণ করেছে। শেখ রাসেলের জন্মদিন উপলক্ষে আওয়ামী লীগ আজ সকাল ৮টায় বনানী কবরস্থানে চিরনিদ্রায় শায়িত শেখ রাসেলসহ ১৫ আগস্টে নিহত সকল শহীদদের কবরে পুষ্পস্তবক অর্পণ, ফাতেহা পাঠ, মিলাদ ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করেছে।
পাশাপাশি আওয়ামী লীগের সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন এবং বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনসমূহ ব্যাপক কর্মসূচি গ্রহণ করেছে। আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এক বিবৃতিতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কনিষ্ঠ পুত্র শেখ রাসেলের জন্মদিন উপলক্ষে আয়োজিত বিভিন্ন কর্মসূচি যথাযোগ্যভাবে পালন করার জন্য দলীয় নেতা-কর্মী, সমর্থক, শুভানুধ্যায়ী ও সর্বস্তরের জনগণের প্রতি অনুরোধ জানিয়েছেন।

‘হৃদয়মাঝে শেখ রাসেল’ গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন
বঙ্গবন্ধুর কনিষ্ঠ তনয় শহীদ শেখ রাসেলের ৫৬তম জন্মদিনের স্মারক প্রকাশনা ‘হৃদয়মাঝে শেখ রাসেল’ গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। গতকাল দুপুরে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে গ্রন্থটির উপদেষ্টা সম্পাদক যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল, সম্পাদক কানাডিয়ান ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশের চেয়ারম্যান চৌধুরী নাফিজ সরাফাত ও প্রকাশক ইয়াসিন কবীর জয়কে সঙ্গে নিয়ে এর মোড়ক উন্মোচন করেন।

এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের মুখ্য সচিব, কার্যালয়ের সচিব, প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব, প্রধানমন্ত্রীর স্ক্রিপ্ট রাইটারসহ প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের কর্মকর্তা বৃন্দ এবং ‘হৃদয়মাঝে শেখ রাসেল’-এর প্রচ্ছদ ও অলংকরণ শিল্পী শাহরিয়ার খান বর্ণ।

শেখ রাসেলের জন্মদিনে তার স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে জয়ীতা প্রকাশনী প্রকাশ করেছে ‘হৃদয়মাঝে শেখ রাসেল’ সচিত্র গ্রন্থটি। উন্নতমানের ছাপায় ৯২ পৃষ্ঠার বইটিতে স্থান পেয়েছে শ’খানেক আলোকচিত্র, যার মধ্যে অনেকগুলোই দুর্লভ। ঘাতক কাঁটায় ঝরে যাওয়া এক ফুলের নাম শেখ রাসেল। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে রাসেলও শহীদ হন। তখন তার বয়স ছিল মাত্র ১২ বছর। নিষ্পাপ এই শিশুটিকে নিয়ে স্মৃতিচারণ করেছেন পঁচাত্তরের হত্যাযজ্ঞ থেকে বেঁচে যাওয়া তার বড় দুই বোন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও শেখ রেহানা।

এ লেখা দুটি সংকলিত হয়েছে বইটিতে। এছাড়া কথাশিল্পী রশিদ হায়দারের একটি লেখাও রয়েছে। ‘হৃদয়মাঝে শেখ রাসেল’-এর সম্পাদনা, প্রচ্ছদ ও অঙ্গপরিকল্পনা করেছেন শাহরিয়ার খান বর্ণ। আজ বিকাল চারটায় বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়াম সংলগ্ন শেখ রাসেল রোলার স্কেটিং ফেডারেশন প্রাঙ্গনে গ্রন্থটির প্রদর্শনী অনুষ্ঠিত হবে।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: শেখ রাসেল

৬ নভেম্বর, ২০১৬

আরও
আরও পড়ুন