Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ৩১ মার্চ ২০২০, ১৭ চৈত্র ১৪২৬, ০৫ শাবান ১৪৪১ হিজরী
শিরোনাম

র‌্যাব কার্যালয়ে সম্রাট ও আরমানকে জিজ্ঞাসাবাদ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৮ অক্টোবর, ২০১৯, ১২:০১ এএম

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগের বহিষ্কৃৃত সভাপতি ইসমাইল চৌধুরী স¤্রাটকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য র‌্যাব-১ কার্যালয়ে নেওয়া হয়েছে। গতকাল বিকালে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) কার্যালয় থেকে স¤্রাট ও তার সহযোগী এনামুল হক আরমানকে মাদক ও অস্ত্র মামলার তদন্তের অংশ হিসেবে আনুষ্ঠানিকভাবে র‌্যাব কার্যালয়ে নেওয়া হয়। এসময় ডিবি পুলিশ মামলার নথিপত্রও র‌্যাবকে বুঝিয়ে দেয়। এর আগে গত বুধবার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক আদেশে স¤্রাট ও আরমানের মামলার তদন্তভার পুলিশের কাছ থেকে র‌্যাবে ন্যাস্ত করা হয়।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, গতকাল বিকালে স¤্রাট ও আরমানকে র‌্যাব-১ কার্যালয়ে নেওয়ার পর তাদের জিজ্ঞাসাবাদ শুরু হয়। জিজ্ঞাসাবাদের প্রাথমিক পর্যায়েই অনেক গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিতে শুরু করেছে স¤্রাট এমন তথ্য জানিয়েছে সূত্র।

গত মঙ্গলবার স¤্রাটের বিরুদ্ধে দায়ের হওয়া অস্ত্র ও মাদক মামলায় ৫ দিন করে ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন ঢাকার একটি আদালত। একই সঙ্গে তার সহযোগী ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগের সহসভাপতি এনামুল হক আরমানের ৫ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করা হয়। মাদক মামলায় তাকে রিমান্ডের আদেশ দেন আদালত। র‌্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক লে. কর্নেল সারওয়ার-বিন-কাশেম বলেন, স¤্রাট ও আরমানকে র‌্যাব-১ কার্যালয়ে নেওয়া হয়েছে।

এর আগে গত ৭ অক্টোবর অস্ত্র আইনের মামলায় স¤্রাটের রমনা থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম এবং মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের মামলায় স¤্রাট ও আরমানের একই থানার পুলিশ পরিদর্শক (নিরস্ত্র) মাহফুজুল হক ভূঞা তাদের গ্রেপ্তার দেখানোসহ ১০ দিন করে ২০ দিনের রিমান্ডের আবেদন করেন। ওইদিন শুনানির জন্য ৯ অক্টোবর ধার্য করা হয়। কিন্তু এর আগেই কারা কর্তৃপক্ষ স¤্রাটকে অসুস্থতা জনিত কারণ দেখিয়ে জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউটে ভর্তি করায় সেদিনের শুনানি পিছিয়ে ১৫ অক্টোবর ধার্য করেছিলেন আদালত। ১৮ সেপ্টেম্বর ঢাকার মতিঝিলের ক্লাবপাড়ায় র‌্যাবের অভিযানে অবৈধ ক্যাসিনো চলার বিষয়টি প্রকাশ্যে আসার পর আত্মগোপনে গিয়েছিলেন যুবলীগের প্রভাবশালী নেতা স¤্রাট। নানা গুঞ্জনের পর ৭ অগাস্ট কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম থেকে স¤্রাট ও তার সহযোগী আরমানকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব। সেদিন বিকালে স¤্রাটকে সঙ্গে নিয়ে কাকরাইলের ভূইয়া ট্রেড সেন্টারে তার কার্যালয়ে অভিযান চালানো হয়।

প্রায় পাঁচ ঘণ্টা অভিযান শেষে গুলিসহ একটি বিদেশি পিস্তল, ১ হাজার ১৬০টি ইয়াবা, ১৯ বোতল বিদেশি মদ, দুটি ক্যাঙ্গারুর চামড়া এবং টর্চারের কাজে ব্যবহৃত বৈদ্যুতিক সরঞ্জাম পাওয়ার কথা জানানো হয় র‌্যাবের পক্ষ থেকে। এরপর রাজধানীর রমনা থানায় অস্ত্র ও মাদক আইনে স¤্রাট ও আরমানের বিরুদ্ধে তিনটি মামলা করে র‌্যাব।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সম্রাট

৬ অক্টোবর, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন