Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার , ১৪ নভেম্বর ২০১৯, ২৯ কার্তিক ১৪২৬, ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪১ হিজরী

কাস্টমস বিভাগের হানা :ধর্মগুরুর আশ্রমে কোটি কোটি ডলার, সোনা-হীরা

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৯ অক্টোবর, ২০১৯, ৪:২১ পিএম

নিজেকে কৃষ্ণের দশম অবতার হিসেবে পরিচয় দেওয়া তথাকথিত ধর্মগুরু কল্কির দেশের নানা আশ্রমে আয়কর বিভাগের হানায় উদ্ধার করা হয়েছে হিসাব বহির্ভূত নগদ ৯৩ কোটি টাকা। সঙ্গে সোনা-হীরা মিলিয়ে ৪০৯ কোটি টাকার সম্পত্তি।

আসল নাম বিজয় কুমার, এক সময় ছিলেন এলআইসির ক্লার্ক। আশির দশকের মাঝামাঝি তিনি চাকরি ছেড়ে চিত্তুরে একটি স্কুল খোলেন। নাম দেন, জিবাশ্রম। তার শিষ্যদের আধ্যাত্মিক পাঠ দিতেন তিনি। চিত্তুরে তিনি ওয়াননেস নামে একটি বিশ্ববিদ্যালয়ও খোলেন। প্রচুর সেলিব্রেটি এবং বড় ব্যবসায়ীরা তার শিষ্য। অন্ধ্রপ্রদেশ, তামিলনাড়ু, কর্নাটকে তার প্রচুর আশ্রম রয়েছে। এ ছাড়া বিদেশেও তার যাতায়াত রয়েছে।

দেশ-বিদেশে তার যাবতীয় আশ্রমের অ্যাকাউন্ট দেখভালের দায়িত্বে ছিলেন স্ত্রী পদ্মাবতী এবং ছেলে এনকেভি কৃষ্ণ।

আয়কর দফতর সূত্রে জানা গিয়েছে, তার প্রতিটা আশ্রমেরই হিসাব বহির্ভূত আয় রয়েছে। সেই আয় গোপন রাখা হত, এমন তথ্য হাতে পাওয়ার পরই ১৬ অক্টোবর থেকে বিভিন্ন আশ্রমে তল্লাশি শুরু করেন আয়কর অফিসারেরা।

খবর, তার আশ্রমে ১৮ কোটি টাকার মূল্যের নগদ মার্কিন ডলার উদ্ধার হয়েছে। বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে ৮৮ কেজি সোনা, যার মূল্য ২৬ কোটি টাকা এবং ১ হাজার ২৭১ ক্যারাটের হীরা। সব মিলিয়ে মোট ৫০০ কোটি টাকারও বেশি হিসাব বহির্ভূত সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করেছেন আয়কর অফিসাররা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভারত


আরও
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ