Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার , ১২ নভেম্বর ২০১৯, ২৭ কার্তিক ১৪২৬, ১৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪১ হিজরী

ভোলায় মা ইলিশ শিকার করতে গিয়ে দফাদার সহ ৫ গ্রাম পুলিশ হাজতে

ভোলা জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২২ অক্টোবর, ২০১৯, ৮:৪০ পিএম

ভোলায় দফাদারের নেতৃত্বে মা ইলিশ শিকারের দায়ে পাঁচ গ্রাম পুলিশসহ নয় জনকে কারাদন্ড দিয়েছে ভ্রাম্যমান আদালত। মঙ্গলবার ২২/১০/১৯ ইং সকালে ভোলা সদর উপজেলার সহকারি কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী হাকিম মো. কাওছার হোসেন এ দন্ডাদেশ প্রদান করেন। এ সময় দিন মোহাম্মদ ও জসিম নামের দুই জেলেকে পাঁচ হাজার টাকা করে জরিমানা করে ভ্রাম্যমান আদালত। দন্ডপ্রাপ্তরা হলেন ভোলার দৌলতখান উপজেলার মদনপুর ইউনিয়নের গ্রাম পুলিশের দফাদার মো. ইউছুফ, একই ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের গ্রাম পুলিশ মো. মোশারেফ হোসেন (হেজু), ২নং ওয়র্ডের গ্রাম পুলিশ আব্দুল মন্নান, ৩নং ওয়ার্ডের গ্রাম পুলিশ মো. হেলাল ও ৫নং ওয়ার্ডের গ্রাম পুলিশ মো. লোকমান হোসেন। বাকী দন্ডপ্রাপ্তরা হলেন সদর উপজেলার মো. নুরউদ্দিন, মো. ইউছুফ, মো. অহিদ, মো. ইব্রাহীম।
সদর উপজেলা সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা মো. আসাদুজ্জামান জানান, মঙ্গলবার সকালে মৎস্য বিভাগ ও নৌ পুলিশের একটি টিম ভোলার মেঘনা নদীতে অভিযানে নামে। এসময় মেঘনা নদীর ভোলার খাল পয়েন্ট থেকে একটি ট্রলারে পাঁচ জন গ্রাম পুলিশকে পোশাক পরিহিত অবস্থায় মাছ ও জালসহ আটক করা হয়। এসময় এদের কাছে ১০ কেজি মা ইলিশ ও এক হাজার মিটার কারেন্ট জাল জব্দ করা হয়। এদের বিরুদ্ধে এর আগেও নিষিদ্ধকালিন সময়ে নদীতে জেলেদের দিয়ে মাছ ধরানো এবং জেলেদের থেকে জাল-মাছ নিয়ে যাওয়াসহ নান অভিযোগ রয়েছে।
তিনি আরও জানান, গ্রাম পুলিশ ছাড়াও অভিযানে আরও ৬ জেলেকে আট করা হয়েছে। এদের মধ্যে পাঁচ গ্রাম পুলিশ ও চার জেলেকে এক বছর করে কারাদন্ড ও দুই জেলেকে পাঁচ হাজার টাকা জরিমনা প্রদান করে ভ্রাম্যমান আদালত।
দেশের ইলিশ সম্পদ রক্ষায় মৎস্য বিভাগের এ অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও জানান এ কর্মকর্তা। অন্যদিকে লালমোহন সহকারী কমিশনার (ভূমি) খন্দকার মাহমুদুর রহমান জানান অাজ লালমোহনে অভিযান চালিয়ে ১১ টি নৌকা জব্দ করা হয়েছে।



 

Show all comments
  • দীনমজুর কহে ২২ অক্টোবর, ২০১৯, ৯:২৬ পিএম says : 0
    এ অভিযান ভাল ভাবে পালন হতো যদি রখ্খক ভখ্খক না হোত।দালাল চাটুকার কারা? এদেশের কোন সাধারন মানুষ দালালী করেনা।যারা করে তাদের প্রশাসন চিনে।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ