Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ০২ এপ্রিল ২০২০, ১৯ চৈত্র ১৪২৬, ০৭ শাবান ১৪৪১ হিজরী

কেন্দুয়ার রাস্তায় শিশু জন্ম দেয়া মায়ের পরিচয় উদ্ধারে সাংবাদিকদের সহযোগিতা চাইলেন পুলিশ সুপার

নেত্রকোনা জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৪ অক্টোবর, ২০১৯, ৩:২১ পিএম

নেত্রকোনার কেন্দুয়ায় রাস্তায় একটি ফুটফুটে কন্যা শিশু জন্ম দেয়া সেই অজ্ঞাত পরিচয় প্রসূতি মায়ের পরিচয় উদ্ধারে সাংবাদিকদের সহযোগিতা চেয়েছেন নেত্রকোনার পুলিশ প্রশাসন।

পুলিশ সুপার মোঃ আকবর আলী মুন্সী বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় পুলিশ সুপারের সম্মেলন কক্ষে সেই অজ্ঞাত পরিচয় প্রসূতি মা ও কন্যা সন্তানকে সাংবাদিকদের সামনে হাজির করে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে বলেন, নেত্রকোনা জেলার কেন্দুয়া উপজেলার কেন্দুয়া-আঠারবাড়ি সড়কের সাহিতপুর বাজার সংলগ্ন পেরীর মোড়ের ব্রিজের পশ্চিম পাশে গত ১৫ অক্টোবর রাত সাড়ে ১১টার দিকে ভারসাম্যহীন এক নারী কন্যা সন্তান প্রসব করেন। বিষয়টি দেখতে পেয়ে পেরী এলাকার কাইজুল ইসলামের পুত্র শামীম কেন্দুয়া থানা পুলিশকে অবহিত করে। কেন্দুয়া থানার ওসি মোহাম্মদ রাশেদুজ্জামান নবজাতক ওই শিশু ও তার মাকে উদ্ধার করে কেন্দুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তির ব্যবস্থা করেন। একই সঙ্গে তিনি বিষয়টি পুলিশ সুপার, সিভিল সার্জন, কেন্দুয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও সমাজসেবা কর্মকর্তাকে জানিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার অনুরোধ জানান। পরে পুলিশ সুপারের নির্দেশে কেন্দুয়া থানার ওসি মানসিক প্রতিবন্ধী ওই প্রসূতি মা ও নবজাতককে প্রয়োজনীয় কাপড় চোপড় সরবরাহ করে উন্নত চিকিৎসার জন্য নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতালের শিশু ওয়ার্ডে ভর্তির ব্যবস্থা করেন। মানসিক ভারসাম্যহীন মা ও শিশুর যাতে কোন প্রকার সমস্যা না হয় তার জন্য দুই মহিলা পুলিশকে সেখানে দেখ ভাল করার ব্যবস্থা করেন। ৯ দিন চেষ্টা করেও প্রসূতি মায়ের কোন পরিচয় উদ্ধার করতে পারেনি পুলিশ। মানসিক প্রতিবন্ধী প্রসূতি মা একেক বার একেক কথা বলছেন। সে জানায় তার নাম তাকাসিন, সে ঢাকা ধানমন্ডি এলাকা থেকে এসেছে। কিন্তু পুলিশ তার কথায় বিশ্বাস করতে পারছেন না। অবশেষে পুলিশ সুপার মা ও নবজাতক শিশুটি অন্যান্য শিশুর মতো যাতে সুষ্ঠু স্বাভাবিক পরিবেশে ভাল ভাবে বেড়ে উঠতে পারে তার জন্য অজ্ঞাত মায়ের পরিচয় উদ্ধারে তিনি সাংবাদিকদের সহযোগিতা কামনা করেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ