Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার , ২১ নভেম্বর ২০১৯, ০৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ২৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪১ হিজরী

মৃত্যুর ৭ দিন পর স্ত্রীর লাশকেই বিয়ে করলেন যুবক!

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৮ অক্টোবর, ২০১৯, ১২:৩৯ পিএম

পৃথিবীতে আশ্চর্য অনেক ঘটনা ঘটে, যা চোখে না দেখলে বিশ্বাস করা কঠিন। এমনি একটি ঘটনা সবাইকে অবাক করেছে। আইন মেনেই তাদের বিয়ে হয়েছিল। তবে কনের শখের বউ সাজা হয়নি। স্তন ক্যান্সারে মারা গেলেন কনে। তাই স্ত্রীর শেষ ইচ্ছা পূরণে শেষকৃত্যের আগে শাস্ত্র মেনে মরদেহকে সামাজিকভাবে বিয়ে করেছেন এক স্বামী। সম্প্রতি পূর্ব চীনের ডালিয়াং অঞ্চলে এই বিরল ঘটনা ঘটেছে। এরই মধ্যে এটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে।

জানা গেছে, গত সাড়ে পাঁচ বছর ধরে চীনা তরুণী ইয়াং লু স্তন ক্যানসারে ভুগছিলেন। চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত ৬ অক্টোবর তিনি কোমায় চলে যান। এর এক সপ্তাহ পর মারা যান। মৃত্যুর সময় তার বয়স হয়েছিল ৩৫ বছর।
চীনের রীতি অনুযায়ী, মৃত্যুর পর সাত দিন স্ত্রীর মরদেহের সঙ্গেই ছিলেন স্বামী শু শিনান। এরপর শেষকৃত্যের আগে সেই মরদেহকেই বিয়ে করেন তিনি।
একসঙ্গেই পড়াশোনা করতেন ইয়াং লু এবং শু শিনান। ২০০৭ সালে প্রেমের শুরু। ২০১৩ সালে রেজিস্ট্রি করে বিয়ে করেন। এরপর বউ সেজে ঘটা করে বিয়ে করার শখ ছিল লু-র। কিন্তু রেজিস্ট্রির তিন মাস পরেই ক্যানসারে ধরা পড়ে তার। শুরু হয় কেমোথেরাপি। ২০১৭’তে সাময়িকভাবে সেরেও ওঠেন তিনি। কিন্তু কিছুদিন পর ফের ক্যানসার ফিরে আসে তার শরীরে।
লু গত দু বছর ধরে মৃত্যুর সঙ্গে লড়ছিলেন। কিন্তু শেষরক্ষা হয়নি। তাই বলে স্ত্রী-র কনে সাজার ইচ্ছা অপূর্ণ থেকে যাবে, তা মেনে নিতে পারেননি শু শিনান। তাই শেষকৃত্যের আগে কফিনবন্দি স্ত্রীকে সাদা গাউন পরিয়ে করলেন বিয়ে।
এদিকে বিয়ে নিয়ে সংবাদমাধ্যমে কিছু বলেননি শু শিনান। তবে স্ত্রীর শেষ ইচ্ছা পূরণ করতেই তিনি এমন কাজ করেছেন বলে নিকটাত্মীয়দের জানিয়েছেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ