Inqilab Logo

শনিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২১, ১২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২১ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী

গোপনে চীন সফরে ভারতের পররাষ্ট্র সচিব জয়শঙ্কর

প্রকাশের সময় : ২০ জুন, ২০১৬, ১২:০০ এএম

এনএসজির সদস্যপদ লাভে রাশিয়ার সমর্থন পাচ্ছে নয়াদিল্লি
ইনকিলাব ডেস্ক : নিউক্লিয়ার সাপ্লাইয়ার্স গ্রুপ এনএসজির সদস্য হওয়ার ক্ষেত্রে প্রভাবশালী চীনের সমর্থন পেতে চলতি সপ্তাহে গোপনে বেইজিং সফর করেছেন ভারতের পররাষ্ট্র সচিব এস জয়শঙ্কর। এ সফরে তিনি চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ইর সঙ্গে উক্ত ইস্যুতে সরাসরি বৈঠকও করেন। সাম্প্রতিক সময়ে এ নিয়ে দ্বিতীয়বার বেইজিং সফরে গেলেন ভারতের শীর্ষস্থানীয় এই কূটনীতিক। বেইজিং ও দিল্লিস্থ সূত্র এ সফরের কথা নিশ্চিত করেছে। তবে কোনো দেশই আনুষ্ঠানিকভাবে এ ব্যাপারে কোনো মন্তব্য করেনি। দক্ষিণ কোরিয়ার রাজধানী সিউলে আগামী ২৪  জুন ৪৮ সদস্যবিশিষ্ট এনএসজির সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ এক বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। গ্রুপটির একটি প্রভাবশালী সদস্য রাষ্ট্র হচ্ছে চীন। ভারতের উক্ত গ্রুপে সদস্য হওয়ার ক্ষেত্রে বিরোধিতা করছে দেশটি। তাই দেশটির সমর্থন পাওয়ার জোর চেষ্টা চালাচ্ছে দিল্লি। এরই অংশ হচ্ছে এস জয়শঙ্করের গোপন বেইজিং সফর। এদিকে, আগামী ২৩ জুন উজবেকিস্তানের রাজধানী তাসখন্দে সাংহাই কো-অপারেশন অর্গানাইজেশন এসসিওর বার্ষিক শীর্ষ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে। এ সম্মেলনের এক ফাঁকে চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংয়ের সঙ্গে বৈঠক করার কথা রয়েছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির। তাদের মধ্যকার বৈঠকেও ভারতের এনএসজির সদস্য হওয়ার আকাক্সক্ষার বিষয়টি গুরুত্ব পাবে। উল্লেখ্য, এনএসজি হচ্ছে পারমাণবিক অস্ত্র ও প্রযুক্তি সরবরাহকারী ৪৮টি দেশের একটি জোট যেটি পারমাণবিক অস্ত্র তৈরির ক্ষেত্রে ব্যবহৃত উপাদান, সরঞ্জাম ও প্রযুক্তির রপ্তানি নিয়ন্ত্রণের মাধ্যমে পারমাণবিক অস্ত্র বিস্তার রোধের চেষ্টা করে। ১৯৭৪ সালের মে মাসে ভারতের পারমাণবিক অস্ত্র পরীক্ষার প্রেক্ষাপটে জোটটি প্রতিষ্ঠিত হয়। চীন ছাড়াও এশিয়ার জাপান এবং কাজাখস্তান জোটের একটি সদস্য রাষ্ট্র। অপর এক খবরে বলা হয়, এনএসজিতে ভারতের দাবি মজবুত হয়েই চলেছে। আমেরিকা, দক্ষিণ কোরিয়া, এবং ব্রিটেনের পরে এবার ভারতকে সমর্থনের পক্ষে রায় দিল রাশিয়াও। রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভøাদিমির পুতিন বলেছেন, ভারতের এনএসজির সদস্যপদের বিষয়টি তাঁরা সিওলের এনএসজি সভায় তুলবেন। আজ সোমবার এই সভা হতে চলেছে। ইন্ডিয়া টুডের খবর অনুযায়ী, রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট পুতিন বলেছেন, এনএসজিতে ভারতের প্রবেশ নিয়ে আমরা খুবই পজেটিভ। প্রসঙ্গত, কয়েকদিন আগে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট পুতিনকে ফোন করে সমর্থন চেয়েছিলেন। ভারতের এনএসজিতে সদস্যপদ নিয়ে চীন নিজেদের বিরোধিতার অবস্থান থেকে সরছে কিনা তা এখনও স্পষ্ট নয়। ইন্ডিয়া টুডে, ওয়েবসাইট।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: গোপনে চীন সফরে ভারতের পররাষ্ট্র সচিব জয়শঙ্কর
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ