Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার , ১৮ নভেম্বর ২০১৯, ০৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ২০ রবিউল আউয়াল ১৪৪১ হিজরী

রাসূল (সা.) আমাদের জন্য আল্লাহর শ্রেষ্ঠ নেয়ামত

ঈদ এ মিলাদুন্নবী উপলক্ষে রাজধানীতে বিশাল জশনে জুলুছ অনুষ্ঠিত

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৭ নভেম্বর, ২০১৯, ৮:২২ পিএম

মানবতার মুক্তির দূত প্রিয় নবী হযরত মুহম্মদ (সা.) এর শুভাগমন উপলক্ষ্যে প্রতিবছরের ন্যায় এবারও আল্লামা সৈয়্যদ মুহাম্মদ তাহের শাহ্ এর নেতৃত্বে রাজধানীর মোহাম্মদপুর এলাকায় বিশাল জশনে জুলুছ ও ঈদ এ মিলাদুন্নবী (সা.) মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। নেতৃবৃন্দ বলেছেন, রাসূল (সা.) আমাদের জন্য আল্লাহর শ্রেষ্ঠ নেয়ামত।

আঞ্জুমান-এ-রহমানিয়া আহমদিয়া সুন্নিয়া ট্রাষ্ট এর উদ্যোগে গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে মোহাম্মদপুরস্থ কাদেরিয়া তৈয়্যেবিয়া আলিয়া (কামিল) মাদরাসা প্রাঙ্গন হতে এই জুলুছ বের করা হয়। আজিমুশ্বান এই জুলুছ (ধর্মীয় র‌্যালী) মোহাম্মদপুরের শাহজাহান রোড ইকবাল রোড, আসাদ এভিনিউ, নুরজাহান রোড, তাজমহল রোড, শিয়া মসজিদ, শ্যামলী, খিলজী রোড, বাবর রোড হয়ে আবার মাদরাসা প্রাঙ্গনে গিয়ে শেষ হয়। জুলুছে ঢাকা মহানগরী থেকে হাজার হাজার মুসল্লি অংশ নেন। এসময় তাদেরমুখে ছিল নারায়ে তকবির, আল্লাহু আকবার, নারায়ে রেসালত ইয়া রাসূলুল্লাহ (সা.) শ্লোগান। ভাবগম্ভীর পরিবেশে এই জশনে জুলুছ অনুষ্ঠিত হয়।
পরে কাদেরিয়া তৈয়্যেবিয়া আলিয়া (কামিল) মাদরাসা ময়দানে আল্লামা সৈয়্যদ মুহাম্মদ তাহের শাহ্ এর সভাপতিত্বে আলোচনা ও মিলাদ মাহফিলে প্রধান মেহমান ও বিশেষ অতিথি ছিলেন যথাক্রমে সাহেবজাদা আল্লামা সৈয়্যদ মুহাম্মদ কাশেম শাহ ও আল্লামা সৈয়্যদ মুহাম্মদ হামেদ শাহ্।

আল্লামা সৈয়দ মুহাম্মদ তাহের শাহ বলেন, আমরা বিশ্বাস করি রাসূল (সা.) আমাদের জন্য আল্লাহর শ্রেষ্ঠ নেয়ামত। ১২ রবিউল আউয়াল রাসূল (সা.) এর শুভাগমনের দিন হিসেবে সারা জাহানের জন্য ঈদ তথা খুশির দিন। এদিন ধর্মীয় ভাবগম্ভীর পরিবেশে খুশি উদযাপনে ইসলামে কোন বাধা নেই বরং শরীয়ত সম্মত। এদিন খুশি উদযাপন করা আল্লাহর সন্তুষ্টি অর্জনের এক উত্তম উছিলা।
ঈদ এ মিলাদুন্নবী (সা.)এর ফজিলত তুলে ধরে বক্তব্য রাখেন জামেয়া আহমদিয়া সুন্নিয়া আলিয়া মাদরাসার প্রধান মুহাদ্দিস আল্লামা ওবায়দুল হক নঈমী. কাদেরিয়া তৈয়্যেবিয়া আলিয়া মাদরাসার অধ্যক্ষ কাজী আব্দুল আলিম রিজভী, আল্লামা জসিম উদ্দিন আল আজহারী, মুফতি মাওলানা আবুল কাশেম মোহাম্মদ ফজলুল হক, হাফেজ মাওলানা মুনিরুজ্জামান ও মুফতী মাহমুদুল হাসান। এতে আরো উপস্থিত ছিলেন,আঞ্জুমানের সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট মুহাম্মদ মহসিন, সেক্রেটারি জেনারেল মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন, পিএইচপি ফ্যামিলির চেয়ারম্যান সুফী মিজানুর রহমান ও আঞ্জুমানের অতিরিক্ত সচিব আলহাজ্ব মোহাম্মদ শামসুদ্দিন।



 

Show all comments
  • আবদুল হামিদ ৭ নভেম্বর, ২০১৯, ৯:৩৯ পিএম says : 0
    ঈদে মিলাদুন্নবীصلى عليه وسلم উদযাপন করার মাধ্যমে ঈমানদারদের ঈমান মজবুত হয়। সকল মুমিনের উচিত ঈদে মিলাদুন্নবী উদযাপন করা।
    Total Reply(0) Reply
  • নজরুল ইসলাম ৭ নভেম্বর, ২০১৯, ১১:০৩ পিএম says : 0
    হযরত মোহাম্মদ (দঃ) এর মাধ্যমে ইসলাম, ঈদ,নামাজ, রোজা, ধর্ম পেয়েছি। সুতারাং তিনিই মানবজাতির জন্য আল্লাহর রহমত। এই রহমত প্রাপ্তিতে শোকরিয়া জ্ঞাপন করা মুসলমানদের কর্তব্য। যেটা ঈদে মিলাদুন্নবি, কোরান খানি, জিকির, হামদ-নাত এর মাধ্যমে করা হয়।
    Total Reply(0) Reply
  • মুহাম্মদ গোলাম মোস্তফা ৭ নভেম্বর, ২০১৯, ১১:০৮ পিএম says : 0
    মহান আল্লাহ পবিত্র কোরআনের সূরা আম্বিয়া ১০৭ নং আয়ায়ে বলেন "হে হাবীব!আমি আপনাকে সমস্ত সৃষ্টি জগতের রহমত হিসেবে প্রেরণ করেছি! সাধারণ কোনো নেয়ামত পেলে আমরা খুশি উদযাপন করি!আর এত বড় নবী পেয়ে যারা খুশি হয় না,তারা সবাই শয়তান!কারণ শয়তান জীবনে চারবার কেঁদেছিল!তার মধ্যে একদিন হল আমাদের প্রিয় নবী(দ:) এ পৃথিবীতে আগমনের দিন!
    Total Reply(0) Reply
  • মুহাম্মদ মুতাছিম বিল্লাহ রুপু ৮ নভেম্বর, ২০১৯, ১২:৩৩ এএম says : 0
    মাশা আল্লাহ
    Total Reply(0) Reply
  • মুহাম্মদ মুতাছিম বিল্লাহ রুপু ৮ নভেম্বর, ২০১৯, ১২:৩৩ এএম says : 0
    মাশা আল্লাহ
    Total Reply(0) Reply
  • মো বাবলু মিয়া ৮ নভেম্বর, ২০১৯, ৭:৩৯ এএম says : 0
    ঈদে মিলাদুন্নবী মানব জাতির মুক্তির আনোর দিশারী।আওলাদে রাসুলের আগমন মুসলিম সমাজকে নতুন প্রেরনায় ঈমানী চেতনা দান করে।
    Total Reply(0) Reply
  • মো বাবলু মিয়া ৮ নভেম্বর, ২০১৯, ৭:৩৯ এএম says : 0
    ঈদে মিলাদুন্নবী মানব জাতির মুক্তির আনোর দিশারী।আওলাদে রাসুলের আগমন মুসলিম সমাজকে নতুন প্রেরনায় ঈমানী চেতনা দান করে।
    Total Reply(0) Reply
  • ফাইজুল আমিন ৮ নভেম্বর, ২০১৯, ৯:২৮ এএম says : 0
    ঈদে মিলাদুন্নবীصلى عليه وسلم উদযাপন করার মাধ্যমে ঈমানদারদের ঈমান মজবুত হয়। সকল মুমিনের উচিত ঈদে মিলাদুন্নবী উদযাপন করা।
    Total Reply(0) Reply
  • Somrat Jakir Reza Taheri Qadri ৯ নভেম্বর, ২০১৯, ৬:৪৩ পিএম says : 0
    ঈদুল ফিতর বা ঈদুল আজহা শুধুমাত্র মুসলমানদের জন্য, পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী সল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম হচ্ছে সমগ্র সৃষ্টির জন্য আঠারো হাজার আলম তের হাজার মাখলুকাতের জন্য। ... সুবহানাল্লা, সুবহানাল্লা
    Total Reply(0) Reply
  • Jahid Hossain Reaz ১০ নভেম্বর, ২০১৯, ৪:০৩ পিএম says : 0
    অসাধারণ , মারহাবা
    Total Reply(0) Reply
  • রায়মন আহমেদ ১০ নভেম্বর, ২০১৯, ৭:৩০ এএম says : 0
    00 ঈদে মিলাদুন্নবীصلى عليه وسلم উদযাপন করার মাধ্যমে ঈমানদারদের ঈমান মজবুত হয়। সকল মুমিনের উচিত ঈদে মিলাদুন্নবী উদযাপন করা
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ঈদ-ই-মিলাদুন্নবী


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ