Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার , ২০ নভেম্বর ২০১৯, ০৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ২২ রবিউল আউয়াল ১৪৪১ হিজরী

ভাসছে চট্টগ্রাম উপকূল

চট্টগ্রাম ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ৯ নভেম্বর, ২০১৯, ৫:০৫ পিএম

ধেয়ে আসা ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের প্রভাবে চট্টগ্রামের উপকূলীয় জনপদে প্রবল জোয়ার হানা দিয়েছে। জোয়ারের উচ্চতা ক্রমেই বাড়ছে। জোয়ারের পানিতে ভাসছে উপকূলীয় এলাকা। নগরীর পতেঙ্গা, হালিশহর, কাট্টলীসহ আনোয়ারা, বাঁশখালী, সীতাকুন্ড ও স‌্বদ্বীপ উপকূলে জোয়ারের উচ্চতা বাড়ছে।

উপকূলের লোকজন নিরাপদ আশ্রয়ে ছুটছেন। বিভিন্ন আশ্রয়কেন্দ্রে লোকজন যেতে শুরু করেছেন। প্রবল জোয়ার থেকে গবাদিপশু ও সহায়-সম্বল রক্ষায় ব্যস্ত হয়ে পড়েছেন উপকূলের বাসিন্দারা। প্রশাসন ও রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির কর্মীরা লোকজনকে নিরাপদে সরিয়ে নিচ্ছেন।

ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের প্রভাবে সাগর উপকূলে মাছ ধরা বন্ধ রয়েছে। জেলেরা নিরাপদে ফিরে আসছেন। উপকূলের বাসিন্দারা আশ্রয়কেন্দ্রের পাশাপাশি নিজেদের আত্মীয়স্বজনের বাসাবাড়িতে ছুটছেন। নগরীর পতেঙ্গা, হাশিহর ও কাট্টলী এলাকায় আশ্রয়কেন্দ্র খোলা হয়েছে।

পতেঙ্গা এলাকার স্থায়ী আশ্রয়কেন্দ্রের পাশাপাশি কয়েকটি স্কুল, কলেজ ও মাদরাসা লোকজনের জন্য খুলে দেয়া হয়েছে। জনপ্রতিনিধি ও পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে লোকজনকে নিরাপদ আশ্রয়ে যেতে সহযোগিতা করা হচ্ছে।

ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের প্রভাবে উপকূলীয় এলাকায় প্রবল জোয়ার ও জলোচ্ছ¡াসের আশঙ্কা রয়েছে। আবহাওয়া বিভাগের পক্ষ থেকে চট্টগ্রামে ৯ নম্বর মহাবিপদ সংকেত ঘোষণা করা হয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ঘূর্ণিঝড় বুলবুল


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ