Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার , ০৬ ডিসেম্বর ২০১৯, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ০৮ রবিউস সানি ১৪৪১ হিজরী

খাদ্যে ভেজাল

| প্রকাশের সময় : ১৪ নভেম্বর, ২০১৯, ১২:০১ এএম

কোনো দেশে আইনের শাসন বা সুশাসন কতটা নিশ্চিত তা অনেকাংশে নির্ভর করে জনসাধারণের দৈনন্দিন জীবনের মান কতটা উন্নত বা অবনত হয়েছে, তার ওপর। দৈনন্দিন জীবনযাত্রার মান দৈনন্দিন খাদ্যমানের ওপর ভিত্তি করে অনেকটাই। কিন্তু বাংলাদেশের বর্তমান খাদ্যদ্রব্যে ভেজাল মেশানোর সংবেদনশীল ও আলোচিত খবরগুলো জনসাধারণ বা ভোক্তাদের মনে হতাশা সৃষ্টি করতে বাধ্য। নিত্যপ্রয়োজনীয় অনেক খাদ্যদ্রব্যে বিপুল পরিমাণে ভেজাল মেশানোর খবর পত্রিকায় বড় বড় শিরোনামে এসেছে। সরকারের ন্যাশনাল ফুড সেফটি ল্যাবরেটরি এর আগে গরুর দুধ-দইয়ে ভেজাল পেয়েছিল। আমরা উদ্বেগের সঙ্গে দেখেছি, হাইকোর্টের হস্তক্ষেপের পরও সংশ্নিষ্ট ক্ষেত্রে পরিস্থিতির তেমন হেরফের ঘটেনি। অথচ সরকারি সংস্থার দ্বারা ভেজাল চিহ্নিত হওয়ার পরই উপযুক্ত সরকারি সংস্থা দায়ী প্রতিষ্ঠান বা ব্যক্তির বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেবে, সেটাই স্বাভাবিকভাবে জনসাধারণের প্রত্যাশা। সুস্থ দেহে সুন্দর মন নিয়ে গড়ে উঠবে প্রজন্মের পর প্রজন্ম। রূপকল্প ২০২১ বাস্তবায়ন হোক, সঙ্গে জনসাধারণের সুস্বাস্থ্য নিশ্চিত হোক। উন্নয়নশীল বাংলাদেশ জনগণের প্রধান চাহিদা। সব খাতেই উন্নয়নের মাধ্যমে স্বনির্ভর হোক আরও- এটাই প্রত্যাশা।
মিতা কলমদার
লোকপ্রশাসন বিভাগ, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ