Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার , ১১ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ১৩ রবিউস সানি ১৪৪১ হিজরী

লাদেন-বাগদাদিকে তথ্য ফাঁসের ভয়ে হত্যা করেছে যুক্তরাষ্ট্র

সাক্ষাৎকারে আসাদ

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৭ নভেম্বর, ২০১৯, ১২:০১ এএম

নিজ দেশের ভৌগোলিক অখন্ডতা প্রশ্নে কখনোই আপোষ করবেন না বলে জানিয়েছেন সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদ। রাশিয়ার একটি নিউজ চ্যানেলকে দেয়া সাক্ষাৎকারে এ কথা বলেন তিনি। গতকাল শনিবার এ খবর প্রকাশ করেছে ‘ইরনা’। ওই সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, ‘সিরিয়াকে খন্ড-বিখনন্ড করার ষড়যন্ত্র চলছে। কিন্তু আমি ক্ষমতায় থাকাকালে সেটা কখনো বাস্তবায়িত হতে দেব না।’

এ সময় বাশার আল আসাদ জানান, যুক্তরাষ্ট্র উগ্র জঙ্গি গোষ্ঠী ইসলামিক স্টেট (আইএস) সৃষ্টি করেছে। মার্কিনিদের পৃষ্ঠপোষকতা নিয়েই সিরিয়ায় ব্যাপক ধ্বংসকান্ড চালিয়েছে এই সন্ত্রাসী গোষ্ঠী।
তিনিও আরও বলেন, বিন লাদেন ও আবু বকর বাগদাদির মতো জঙ্গি নেতাদের প্রয়োজন ফুরিয়ে গেলে যুক্তরাষ্ট্র নিজেই তাদেরকে হত্যা করে। কারণ এসব সন্ত্রাসী নেতা বেঁচে থাকলে যুক্তরাষ্ট্রের অনেক গোপন তথ্য ফাঁস হয়ে যেত।

বাশার আল আসাদ আরও বলেন, যুক্তরাষ্ট্র উগ্র জঙ্গি গোষ্ঠী ইসলামিক স্টেট (আইএস) সৃষ্টি করেছে এবং তাদের পৃষ্ঠপোষকতা নিয়েই এই সন্ত্রাসী গোষ্ঠী সিরিয়ায় ব্যাপক ধ্বংসকান্ড চালিয়ছে। ওয়াশিংটনের সার্বিক সহযোগিতায় জঙ্গিরা সিরিয়ার সেনাবহিনীর বিরুদ্ধে যুদ্ধ করেছে বলে উল্লেখ করেন তিনি।

সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলে তুরস্কের সা¤প্রতিক সামরিক অভিযানের পর ওই অঞ্চলে তৎপর কুর্দি গেরিলাদের সঙ্গে দামেস্কের সম্পর্ক ভালো হয়েছে বলে জানান প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদ। তবে কুর্দি নেতাদের সঙ্গে সিরিয়া সরকারের আলোচনায় যুক্তরাষ্ট্র বাধা সৃষ্টির চেষ্টা করছে বলে তিনি অভিযোগ করেন।
প্রেসিডেন্ট আসাদ বলেন, কুর্দিদেরকে আবারো সরকারের বিরুদ্ধে লেলিয়ে দিতে চায় ওয়াশিংটন। কিন্তু সিরিয়ার মানুষ আট বছরের যুদ্ধের পর এখন একথা উপলব্ধি করেছেন যে, সরকারের সঙ্গে আপোষ ও সহযোগিতা করার কোনো বিকল্প নেই।



 

Show all comments
  • Mamoon Mozumder ১৭ নভেম্বর, ২০১৯, ১১:৩৪ এএম says : 0
    অনেক দেরি করে যুক্তরাষ্ট্রের শয়তানি বুঝতে শুরু করেছেন সবাই ! ধন্যবাদ !
    Total Reply(0) Reply
  • jack ali ১৭ নভেম্বর, ২০১৯, ১১:১৮ এএম says : 0
    May Allah [SWT] destroy Bashar al Asad--barbarian killer of Muslim.....
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন