Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার , ১৬ ডিসেম্বর ২০১৯, ০১ পৌষ ১৪২৬, ১৮ রবিউস সানি ১৪৪১ হিজরী

কাশ্মীরের সিয়াচেনে তুষার ঝড়ে চার সেনাসহ ৬ জন নিহত

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৯ নভেম্বর, ২০১৯, ১:৩৮ পিএম

বিশ্বের সবচেয়ে দুর্গম যুদ্ধক্ষেত্র ভারত অধিকৃত কাশ্মীরের সিয়াচেনে তুষারপাতে ৬ জন নিহত হয়েছেন। গতকাল সোমবার এ ঘটনা ঘটেছে। নিহতদের মধ্যে ভারতের চারজন সেনাও রয়েছেন। ভারতীয় সেনাবাহিনীর সূত্রে এ কথা জানা গেছে।
জানা গেছে, সিয়াচেনে ১৮ হাজার ফুট উচ্চতায় নর্দার্ন গেøসিয়ারে ধস নামে। সে সময় আট ভারতীয় সেনা নিখোঁজ হন। দীর্ঘ সময় উদ্ধার তৎপরতার পর ৬ জনের মৃতদেহ ও দুইজনকে জীবিত উদ্ধার করা হয়।
ভারতীয় সেনারা সোমবার ওই এলাকায় প্যাট্রলিংয়ে ছিলেন। এ সময় তুষার ধস নামলে তারা সেখানে আটকে পড়েন। তারপরই তাদের দ্রæত উদ্ধার করতে অভিযান পরিচালনা করা হয়।
এর আগে ২০১৬ সালে তুষার ধসে সিয়াচেনে দশ ভারতীয় সেনা নিখোঁজ হন। হিমবাহের উত্তর অংশে তুষার ধস ঘটার পরে অনুমান করা হয় ওই দলটি ৬০০ মিটার উঁচু এবং ১ কিলোমিটার প্রশস্ত এক বরফ-প্রাচীরের অন্তরালে আটকে পড়েছিল। সেই ঘটনায় সবাই নিহত হন।
ওই ঘটনার পর সিয়াচেন থেকে সেনা সরানোর উদ্যোগ নিয়েছিলেন ভারতের তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং। কিন্তু ভারতের দাবি ছিল, বর্তমানে অবস্থান অনুযায়ী ম্যাপ বা স্যাটেলাইট ডকুমেন্টেশন-এ রাজি হয়নি পাকিস্তান। ফলে সিয়াচেন থেকে ভারতীয় সেনাও সরেনি।
প্রসঙ্গত, বিশ্বের সর্ববৃহত যুদ্ধক্ষেত্র হিসেবে পরিচিত সিয়াচেন। সিয়াচেনে এ পর্যন্ত প্রায় ৯০০ ভারতীয় সেনার মৃত্যু হয়েছে। এই এলাকায় বিরোধী পক্ষের সেনাদের চেয়ে সবচেয়ে বড় শত্রু বরফ ও ঠান্ডা।
সূত্র : বিবিসি



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভারত

১৫ ডিসেম্বর, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ