Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ২৮ অক্টোবর ২০২০, ১২ কার্তিক ১৪২৭, ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী

চট্টগ্রাম বন্দর এলাকায় হরতালের আবহ বন্ধ পণ্য পরিবহন

চট্টগ্রাম ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ২০ নভেম্বর, ২০১৯, ১:৫০ পিএম

দেশের প্রধান সমুদ্র বন্দর চট্টগ্রাম বন্দর এলাকায় হরতাল পরিস্থিতি বিরাজ করছে। নেই ভারী যানবাহনের আনাগোনা। বন্ধ রয়েছে সড়ক পথে পণ্য পরিবহন। এতে করে আমাদানি-রফতানি কার্যক্রম স্থবির হয়ে পড়ার উপক্রম হয়েছে।

প্রতিদিন বন্দরকে ঘিরে হাজার হাজার ট্রাক, কার্ভাড ভ্যান ও কন্টেইনারবাহী ভারী যানবাহনের ভিড় থাকে। বুধবার সকাল থেকে ভিন্ন চিত্র বন্দর এলাকায়। নেই ভারী যানবাহন। বন্দরে ভেতরেও পণ্যবাহি কোন যানবাহন প্রবেশ করেনি।

পতেঙ্গায় গড়ে উঠা বেসরকারি কন্টেইনার ডিপোগুলো থেকেও পণ্যপরিবহন বন্ধ আছে। একই চিত্র চট্টগ্রাম ইপিজেডেও। নগরীর সদরঘাট এলাকায় কর্ণফুলীর ১৬টি ঘাট থেকেও পণ্য পরিবহন বন্ধ। তবে বন্দর থেকে নৌপথে কোস্টার জাহাজে এবং রেলপথে পণ্য পরিবহন স্বাভাবিক আছে বলে জানান বন্দরের কর্মকর্তারা।
ধর্মঘট অব্যাহত থাকলে চট্টগ্রাম বন্দরে জট বাড়বে এবং সেই সাথে আমদানি-রফতানি কার্যক্রম ব্যাহত হওয়ার আশঙ্কা করা হচ্ছে। নতুন সড়ক পরিবহন আইন সংশোধনের দাবিতে সারা দেশের মতো বাণিজ্যিক রাজধানী চট্টগ্রামেও পণ্যবাহী গাড়ি চলাচল বন্ধ রাখা হয়। পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী ভোর ৬টা থেকে পণ্যবাহী ট্রাক, কাভার্ডভ্যান চালাচ্ছেন না চালক ও শ্রমিকরা।

চট্টগ্রাম বন্দর, নীমতলা, পোর্ট কানেকটিং রোডে ঘুরে দেখা গেছে শ্রমিকরা রাস্তায় পিকেটিং করছেন। তারা গণপরিবহন চলাচলে ও বাধা দিচ্ছেন। এতে করে নগরীতে গণপরিবহনের সংখ্যাও কমে গেছে। নগরীর মাদারবাড়ী, কদমতলী, নিমতলাসহ বিভিন্ন সড়কের আশপাশে, ট্রাক টার্মিনালে অলস বসে আছে পণ্যবাহী গাড়ি।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: পরিবহণ ধর্মঘট


আরও
আরও পড়ুন