Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ৩০ নভেম্বর ২০২১, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৪ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী

পিরোজপুরে ভেজাল ঔষধ তৈরি অভিযোগে ভূয়া কবিরাজের জরিমানা

পিরোজপুর জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৫ নভেম্বর, ২০১৯, ৮:৪১ পিএম

পিরোজপুর শহরের গোডাউন রোড সড়কে (পুরাতন খেয়াঘাট) এলাকায় ভূয়া কবিরাজ লিয়াকত মোল্লা ওরফে দারোগা লিয়াকত মোল্লাকে ভেজাল ওষুধ তৈরি ও অনুমোদন ছাড়া এ্যালোপ্যাথি ওষুধ ব্যবহারের অভিযোগে জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমান আদালত।
সোমবার সন্ধ্যায় পিরোজপুরের জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ও ভ্রাম্যমান আদালতের বিচারক মো: ইয়াসিন খন্দকার বিভিন্ন অভিযোগে লিয়াকত মোল্লাকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে ১ মাসের কারাদন্ডের এ আদেশ দেন। এ সময় বিপুল পরিমানে ভেজাল ওষুধ ও ভেজাল ওষুধ তৈরি সরঞ্জাম জব্দ করা হয়।
লিয়াকত মোল্লা (৭৫) পিরোজপুর শহরের গোডাউন রোডের মৃত আব্দুল রাজ্জাক মোল্লার পুত্র। এছাড়া লিয়াকত মোল্লা পিরোজপুর জেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সদস্য এবং টিআইবি পরিচালিত সচেতন নাগরিক কমিটি (সনাক) এর সহযোগী সজন কমিটির উপ-সমন্বায়ক পদে আছে।
ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তরের পিরোজপুরের ঔষধ তত্ত্বাবধায়ক এস এম সুলতানুল আরেফিন জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শহরের গোডাউন রোডে লিয়াকত মোল্লা নামের এক করিবারের বাসায় অভিযান চালানো হয়। অভিযান চলাকালে লিয়াকত মোল্লার কাছে কবিরাজি চিকিৎসার সনদপত্র চাইলে তিনি দুই-তিন দিনের করে বিভিন্ন প্রশিক্ষনের সনদ দেয়ায় । যা চিকিৎসক হিসেবে প্রয়োজনীয় সনদপত্র নয়। তাই তিনি মিথ্যা পরিচয় দিয়ে এখানে কবিরাজি করতেন। এ সময় তার বাসায় তল্লাশী চালিয়ে ১ লক্ষ মলম তৈরির কৌটা, ২ ড্রাম তৈরি কৃত ভেজাল মলম, ৫০০ প্যাকেট বিভিন্ন এ্যালোপ্যাথিক মলম, ৫০০ পিচ নোকেট চ্যাপলেট, ২ বস্তা বরিক এ্যাসিড, ২ বস্তা চক পাউডার, ১০০ পিচ দাঁতের মাজন, ২০০ প্যাকেট বিভিন্ন কোম্পানির ট্যাবলেট এবং ২ বস্তা বিভিন্ন গাছের চামরা জব্দ করা হয়।
ঔষধ তত্ত্বাবধায়ক এস এম সুলতানুল আরেফিন আরো জানান, ভূয়া কবিরাজ লিয়াকত মোল্লা কোন অনুমোদন ছাড়াই বিভিন্ন কোম্পানির এ্যালোপ্যাথিক এন্টিবায়োটিক ইনজেকশন গুড়া করে এবং এ্যালোপ্যাথিক মলম নিজস্ব ভাবে তৈরি করে ঔষধ হিসেবে ব্যবহার করতেন। যা মানব দেহের জন্য খুবই ক্ষতিকর।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভূয়া কবিরাজের জরিমানা
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ