Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার , ০৫ ডিসেম্বর ২০১৯, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ০৭ রবিউস সানি ১৪৪১ হিজরী

ঝালকাঠির বধ্যভূমিতে নির্মিত হচ্ছে স্মৃতিস্তম্ভ

ঝালকাঠি জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ৩ ডিসেম্বর, ২০১৯, ১২:০১ এএম

বিজয়ের মাস ডিসেম্বরে ঝালকাঠি জেলার সবচে বড় বধ্যভূমিতে নির্মিত হচ্ছে শহীদের স্মরণে স্মৃতিস্তম্ভ। গতকাল সোমবার সকালে শহরের শহীদ স্মরণী সড়কের সুগন্ধা নদীর পৌরসভা খেয়াঘাট এলাকায় স্মৃতিস্তম্ভ নির্মাণ কাজের উদ্বোধন করেন জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান সরদার মো. শাহ আলম।
মুক্তিযোদ্ধারা জানান, ঝালকাঠি জেলার সবচে বড় বধ্যভূমি এটি। বর্তমান পৌরসভা খেয়াঘাট সংলগ্ন সুগন্ধা নদীর তীরে মুক্তিযুদ্ধের সময় অসংখ্য মুক্তিযোদ্ধা ও সাধারণ মানুষকে ধরে এনে লাইনে দাড় করিয়ে পাক-বাহিনী ও তাদের দেশিয় এজেন্ট রাজাকাররা গণহত্যা চালায়। এখানে কমপক্ষে দশ হাজার মানুষকে হত্যা করা হয় বলে স্থানীয়রা জানান।
ঝালকাঠি জেলা পরিষদের অর্থায়নে নির্মাণ হচ্ছে স্মৃতিস্তম্ভটি। নির্মাণ কাজের উদ্বোধন উপলক্ষে দোয়া মোনাজাতে জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি সরদার মোহাম্মদ শাহ আলম, জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট খান সাইফুল্লাহ পনির, পৌর মেয়র লিয়াকত আলী খান, নারীনেত্রী শারমিন মৌসুমী কেকা, ঝালকাঠির বধ্যভূমি সংরক্ষণ সংগঠন হৃদয়ে একাত্তরের সাংগঠনিক উপদেষ্টা সাংবাদিক পলাশ রায়, সভাপতি হাসান মাহামুদ, পৌর কাউন্সিলর হুমায়ুন কবিরসহ বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষ উপস্থিত ছিলেন।
ঝালকাঠি জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান সরদার মো. শাহ আলম বলেন, আপতত দেড় লাখ টাকা দিয়ে শহীদ স্মৃতি রক্ষায় স্মৃতিস্তম্ভ নির্মাণ কাজ শুরু করা হচ্ছে। পর্যায়ক্রমে জেলা পরিষদ থেকে আরও অর্থ বরাদ্দের মাধ্যমে শহীদ স্মৃতিস্তম্ভ সাজিয়ে তোলা হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ