Inqilab Logo

ঢাকা সোমবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৩ আশ্বিন ১৪২৭, ১০ সফর ১৪৪২ হিজরী

অবস্থা বুঝে যুক্তরাষ্ট্রের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবে রাশিয়া

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৭ ডিসেম্বর, ২০১৯, ৫:০৫ পিএম | আপডেট : ৫:০৯ পিএম, ৭ ডিসেম্বর, ২০১৯

ইউরোপের ন্যাটো দেশগুলোতে যদি যুক্তরাষ্ট্র ক্ষেপণাস্ত্র মোতায়েন করে তাহলে প্রয়োজন অনুসারে ব্যবস্থা নেবে রাশিয়া। গত শুক্রবার ইতালির রাজধানী রোমে অনুষ্ঠিত এক সম্মেলনে এ কথা বলেন রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ল্যাভরভ। এ সময় তিনি তুরস্কের প্রতিও রাশিয়ার সমর্থন ব্যক্ত করেন। খবর দ্য মস্কো টাইমস।

রোমে ইতালির পররাষ্ট্রমন্ত্রী লুইজি ডি মাইওর সাথে বৈঠকের পর রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই লাভরভ বলেন, ‘রাশিয়া কখনোই কোথাও এ ধরণের ক্ষেপনাস্ত্র মোতায়েন করবে না যদি না যুক্তরাষ্ট্র বাধ্য করে। তারা কোন অস্ত্র মোতায়েন করলে জবাবে রাশিয়াও অনুরুপ অস্ত্র মোতায়েনে বাধ্য হবে।

সম্মেলনে তুরস্ক ও রাশিয়ার মধ্যে ‘সোচি’ চুক্তির ব্যপারে রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, ‘সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলে স্থিতিশীল করাতেই এই চুক্তি করা হয়েছে। সিরিয়ায় তুরস্কের সন্ত্রাসবিরোধী অভিযান অপারেশন ‘পিস স্প্রিং’ নিয়ে তিনি বলেন, ‘তুরস্ক দীর্ঘদিন ধরেই তাদের নিরাপত্তা উদ্বেগ প্রকাশ করেছে। রাশিয়া জাতীয় সুরক্ষা সম্পর্কে তুরস্কের উদ্বেগকে গুরুত্ব দেয়।’

ল্যাভরভ বলেন, ইউরোপে ক্ষেপণাস্ত্র মোতায়েনের ব্যাপারে যদি যুক্তরাষ্ট্র বাস্তবিকই কোনো পদক্ষেপ নেয়, তবে রাশিয়াও পাল্টা জবাব দেবে। মার্কিনিদের সব ধরনের অনৈতিক কর্মকাণ্ডের জবাব দেওয়ার জন্য রুশ সেনারা প্রস্তুত। তিনি যোগ করেন, ‘এ ক্ষেত্রে আমরা আগেভাগে কিছু করব না। মার্কিনিদের প্রতিটি পদক্ষেপ পর্যবেক্ষণ করে তবেই জবাব দেওয়ার মতো উদ্যোগ গ্রহণ করব।’

চলতি বছরের প্রথম দিকে ইন্টারমিডিয়েট রেঞ্জ নিউক্লিয়ার ফোর্সেস বা আইএনএফ চুক্তি থেকে নিজেকে প্রত্যাহার করে নিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। ওই চুক্তিতে ৫০০ থেকে সাড়ে পাঁচ হাজার কিলোমিটার পাল্লার সব ধরনের ক্ষেপণাস্ত্র নিষিদ্ধ করেছিল যুক্তরাষ্ট্র ও রাশিয়া।

 



 

Show all comments
  • jack ali ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯, ১০:৪৭ এএম says : 0
    May Allah [SWT] destroy Russian army alone with Putin and also Army of Basher-Al-Asad the Barbarian and his army----- They are killing Muslim in Syria everyday...No body is saving these oppressed Muslim in Syria
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: রাশিয়া


আরও
আরও পড়ুন