Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার , ১৮ জানুয়ারী ২০২০, ০৪ মাঘ ১৪২৬, ২১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১ হিজরী

বিলের কারণে দেশ ভাগ হতে চলেছে

ভারতের নাগরিকত্ব বিলের কাগজ ছিঁড়ে ফেলে ওয়াইসির প্রতিবাদ

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯, ১২:০১ এএম

ভারতে লোকসভায় নাগরিকত্ব বিলের কাগজ ছিঁড়ে ফেলে মুসলিমদের বিরুদ্ধে বিজেপি সরকারের পদক্ষেপের তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছেন এমআইএম নেতা আসাদ উদ্দিন ওয়াইসি। বিল পেশে আপত্তি জানিয়ে ওয়াইসি বলেন, ধর্মনিরপেক্ষতা দেশের মূল কাঠামোর অঙ্গ। এই বিল (মুসলিম হিসেবে) তার বিরোধী। এটি খর্ব করছে মৌলিক অধিকারও। বিলটি আইসম্মত নয়। এই সূত্রে সায়রা বানো মামলা, কেশবানন্দ ভারতী মামলা ও সর্বানন্দ সোনোয়াল মামলার উল্লেখ করেন ওয়াইসি। বক্তব্যের শেষে জার্মানির হিটলার ও ইসরাইলের প্রথম প্রধানমন্ত্রী ডেভিড বেন-গুরিয়ানের সঙ্গে ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে তুলনা করেন। পরে ওই অংশ স্পিকারের নির্দেশে লোকসভার কার্যবিবরণী থেকে বাদ দেওয়া হয়। পরে বিল নিয়ে বিতর্কের সময় বিলের কপি ছিঁড়ে ওয়াইসি বলেন, মোহনদাস কর্মচন্দ গান্ধীও দক্ষিণ আফ্রিকায় বৈষম্যমূলক নাগরিকত্ব কার্ড ছিঁড়ে ফেলেছিলেন। ওয়াইসি বলেন, এই বিল মুসলিমদের রাষ্ট্রহীন করার চক্রান্ত। যা আরও একবার দেশভাগের দিকে নিয়ে যাবে। সরকারি বেঞ্চের এমপিরা ওয়াইসির এই আচরণের তীব্র নিন্দা করেছেন। তাঁদের মতে, এটা সংসদের অপমান। নাগরিকত্ব সংশোধনী বিলের বিরোধিতা করে তিনি বলেন, এই বিলে ভারতের স্বাধীনতা সংগ্রামীদের অপমান করা হয়েছে। দল থেকে বাদ হওয়ার ইঙ্গিত দিয়ে এদিন অল-ইন্ডিয়া-মজলিশ-এ-ইত্তেহাদুল-মুসলিমিন নেতা বলেন, “আমি এর আগে দু’বার বাদ পড়েছি এবং আমি এইরকম বিষয়ে বহিষ্কার হতে তৈরি আছি’। বিজেপি সরকারের আগ্রাসী নীতির তীব্র সমালোচনা করে ওয়াইসি আরও বলেন, ‘কেন্দ্র সাধারণ মানুষের মধ্যে মুসলিমদের বিষয়ে বিশেষ ভাবনা তৈরি করছে। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ সোমবার লোকসভায় নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল পেশ করেছেন যা বিরোধিতা করেছে বিরোধী দলগুলি। এই বিল মূলত পাকিস্তান, বাংলাদেশ, আফগানিস্তানের ধর্মীয় নিপীড়নের শিকার অমুসলিমদের ভারতীয় নাগরিকত্ব পেতে সাহায্য করবে। সিটিজেনশিপ অ্যামেন্ডমেন্ট বিলের বিরোধিতা করে প্রতিবাদ চলছে দেশের বিভিন্ন অংশ সহ উত্তর-পূর্বের রাজ্যগুলিতেও। তাই তীব্র বিরোধিতাকে ঠেকাতে দলের সব মানুষকে ৯ ডিসেম্বর থেকে ১১ ডিসেম্বর পর্যন্ত পার্লামেন্টে অবশ্যই উপস্থিত থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বিজেপির পক্ষ থেকে। ছয় দশক পুরনো নাগরিকত্ব বিল সংশোধন করে পাকিস্তান, বাংলাদেশ, আফগানিস্তানের অমুসলিমদের ভারতীয় নাগরিকত্ব পেতে সাহায্য করবে। লোকসভায় কংগ্রেস এই বিলের বিরুদ্ধে আওয়াজ তুলেছে। কংগ্রেস জানিয়েছে, “নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল ভারতীয় সংবিধান বিরোধী একইসঙ্গে ধর্মনিরপেক্ষ নীতি, সংস্কৃতি এবং সভ্যতা বিরোধী”। এনডিটিভি, টিওআই।

 



 

Show all comments
  • Alomgir ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯, ২:২১ এএম says : 1
    আত্বঘাতী বিল,,,,,,
    Total Reply(0) Reply
  • তফসির আলম ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯, ২:২১ এএম says : 1
    ভারতীয় মুসলমানদেরকে রাষ্ট্রহীন করতেই এই তথাকথিত পরিকল্পিত নীলনকশার NRC
    Total Reply(0) Reply
  • Asikur Rahman ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯, ২:২১ এএম says : 2
    আপনি একমাত্র ভারতে মুসলমানদের প্রতিনিধিত্ব করেন।আপনিই পারেন ভারতে মুসলমানদের প্রকৃত অধিকার ফিরিয়ে দিতে। আপনার মত সাহসী নেতা পৃথিবীতে বিরল
    Total Reply(0) Reply
  • ash ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯, ২:২৫ পিএম says : 0
    MUSLIM IN INDIA , DONT HAVE ANY CHOICE ! HAS TO FIGHT FOR THEIR OWN LAND OWN COUNTRY IN INDIA ! AS DID PAKISTAN
    Total Reply(0) Reply
  • ** হতদরিদ্র দিনমজুর কহে ** ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯, ৪:৫৩ পিএম says : 0
    হা হা আপনী ঠিকই বলেছেন ভারত খন্ড খন্ড হবে।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভারত

১৮ জানুয়ারি, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ