Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ১৩ জুলাই ২০২০, ২৯ আষাঢ় ১৪২৭, ২১ যিলক্বদ ১৪৪১ হিজরী
শিরোনাম

শ্রীলঙ্কাকে আফ্রিদি-মালিকদের ধন্যবাদ

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯, ১২:০১ এএম

দশ বছর আগে এই শ্রীলঙ্কা দলের ওপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনাতেই পাকিস্তানের মাটিতে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের আয়োজন বন্ধ হয়ে গিয়েছিল। কাকতালীয় ব্যাপার তো বটেই, সেই পাকিস্তানে আবারও টেস্ট ক্রিকেট ফিরছে এবং সেটি সেই শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ম্যাচ দিয়েই। আজ সকালে রাওয়ালপিন্ডিতে শুরু হচ্ছে দুই ম্যাচ সিরিজের প্রথমটি। শহীদ আফ্রিদি-শোয়েব মালিকদের তাই কৃতজ্ঞতার শেষ নেই শ্রীলঙ্কার কাছে।
২০০৯ সালের মার্চে লাহোরে সেই সন্ত্রাসী ঘটনার পর দীর্ঘদিন একেবারেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট বন্ধ ছিল পাকিস্তানে। কয়েক বছর ধরে বিভিন্ন দল সীমিত পরিসরে পাকিস্তান সফর করছে। জিম্বাবুয়ে, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও শ্রীলঙ্কা সীমিত ওভারের সিরিজ খেলেছে। হয়েছে বিশ্ব একাদশ ও পাকিস্তান দলের মধ্যে টি-টোয়েন্টিও। কিন্তু এই দশ বছরে টেস্ট ক্রিকেট হয়নি একটি বারের জন্যও। অবশেষে অনেক নাটকের পর দুই টেস্টের সিরিজ খেলতে সম্প্রতি পাকিস্তানে পৌঁছেছে শ্রীলঙ্কা দল। রাওয়ালপিন্ডিতে আগামী ১১ ডিসেম্বর শুরু হবে সিরিজের প্রথম টেস্ট। দ্বিতীয় টেস্ট করাচিতে, ১৯ ডিসেম্বর থেকে।
এত দিন পর পাকিস্তানের ক্রিকেটপ্রেমীরা আবারও দেশের স্টেডিয়ামে বসে টেস্ট ম্যাচ দেখতে পারবেন, এটা ভেবেই রোমাঞ্চিত টেস্ট থেকে অবসর নেওয়া সাবেক পাকিস্তান অধিনায়ক শোয়েব মালিক। পাকিস্তানের একটি ক্রিকেট ওয়েবসাইটকে মালিক বলেছেন, ‘এটা আমার জন্য আবেগময় এক মুহূর্ত। আমি যখন লাল বলের ক্রিকেট থেকে অবসর নিলাম, মনে হচ্ছিল, কিছুদিন অপেক্ষা করলে হয়তো পাকিস্তানের মাটিতে একটা টেস্ট খেলে যেতে পারব। আমার বিশ্বাস ছিল, পাকিস্তানে টেস্ট ক্রিকেট ফিরবেই। আমার খুবই ভালো লাগছে।’
আবেগাপ্লুত আরেক সাবেক অধিনায়ক শহীদ আফ্রিদিও। পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের ওয়েবসাইটে ৪৪ বছর বয়সী সাবেক এই অলরাউন্ডার বলেছেন, ‘আমি শ্রীলঙ্কাকে ধন্যবাদ দিতে চাই। একই সঙ্গে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডকেও ধন্যবাদ, দেশে টেস্ট ক্রিকেট ফেরাতে তারা নিরলস চেষ্টা করে যাচ্ছে।’
শ্রীলঙ্কার মতো এই ভাবে অন্য দেশগুলোরও পাকিস্তানের সাহায্যে এগিয়ে আসতে অনুরোধ করেছেন আফ্রিদি, ‘প্রতি বোর্ডের উচিত একে অন্যকে এভাবে সাহায্য করা। অতীতে আমরা শ্রীলঙ্কাকে সাহায্য করেছি, ওরা এবার আমাদের সেটার প্রতিদান দিয়েছে।’

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: শ্রীলঙ্কা


আরও
আরও পড়ুন