Inqilab Logo

বুধবার, ২৫ মে ২০২২, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৩ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী

খালেদা জিয়া ন্যায় বিচার থেকে বঞ্চিত -ইউট্যাব

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১২ ডিসেম্বর, ২০১৯, ৫:৩০ পিএম

বাংলাদেশের সাবেক প্রধানমন্ত্রী, বিএনপির চেয়ারপারসন কারাবন্দি ও অসুস্থ বেগম খালেদা জিয়ার জামিন আবেদন আদালত কর্তৃক খারিজ হওয়ায় ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে অবিলম্বে বয়স ও শারীরিক অসুস্থতা বিবেচনায় তার মুক্তির দাবি জানিয়েছে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের সংগঠন ইউনিভার্সিটি টিচার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ইউট্যাব)। বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে সংগঠনের ৬২৫ জন শিক্ষক বলেন, বেগম খালেদা জিয়া বাংলাদেশের তিনবারের সাবেক নির্বাচিত প্রধানমন্ত্রী। তার স্বামী বাংলাদেশের সাবেক প্রেসিডেন্ট ও সেনাবাহিনীর প্রধান। বর্তমানে খালেদা জিয়া ৭৫ বছর বয়স্কা এবং শারীরিক ও মানসিকভাবে গুরুতর অসুস্থ। যিনি সারাজীবন দেশের মানুষের ভোট ও গণতান্ত্রিক অধিকার প্রতিষ্ঠায় আপোসহীনভাবে সংগ্রাম করে চলেছেন। বয়স ও অসুস্থতা বিবেচনায় অবিলম্বে তার মুক্তি হওয়া বাঞ্ছনীয়। ইতোমধ্যে তিনি প্রায় ১ বছর ১০ মাস ধরে কারাবন্দি।
বিবৃতিতে বলা হয়- চিকিৎসকরা জানিয়েছেন বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হওয়ায় খালেদা জিয়া একা একা চলাফেরা করতে পারেন না। সুচিকিৎসার অভাবে তার যেকোনো সময় শরীরের জটিল পরিস্থিতি তৈরি হতে পারে। এহেন পরিস্থিতিতে জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলায় আপিল বিভাগে তাকে জামিন না দেয়ায় দেশবাসীর ন্যায় আমরা শিক্ষক সমাজের প্রতিনিধি হিসেবে হতাশ হয়েছি। আমরা মনে করি, সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়া ন্যায় বিচার থেকে বঞ্চিত হলেন। আমাদের বিশ্বাস ছিল- সরকারের সকল নজরদারী ও হুমকি উপেক্ষা করে দেশের সর্বোচ্চ আদালত খালেদা জিয়াকে জামিন দিয়ে ন্যায়বিচার নিশ্চিত করবেন। কিন্তু সর্বোচ্চ আদালতের আদেশে দেশের মানুষ হতাশ এবং বাকরুদ্ধ। অথচ তার চেয়েও বড় মামলার আসামী জামিনে ছাড়া পেয়েছেন। আমরা মনে করি খালেদা জিয়াকে কেবল রাজনৈতিক কারণেই জামিন না দিয়ে কারাগারেই মৃত্যুর ষড়যন্ত্র হচ্ছে। আমরা অবিলম্বে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নি:শর্ত মুক্তির দাবি জানাচ্ছি।
ইউট্যাবের বিবৃতি দাতাদের অন্যতম হলেন- সহসভাপতি অধ্যাপক ড. আশরাফুল ইসলাম চৌধুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক অধ্যাপক ড. মোর্শেদ হাসান খান, ড. এবিএম ওবায়দুল ইসলাম, অধ্যাপক ড. আখতার হোসেন খান, ড. ফরিদ আহমেদ, অধ্যাপক ড. আবদুর রশিদ, অধ্যাপক আমিনুল ইসলাম মজুমদার, অধ্যাপক লুৎফর রহমান, অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ ছিদ্দিকুর রহমান খান, অধ্যাপক ড. আল মোজাদ্দেদী আলফেছানী, ড. গোলাম রব্বানী, ড. মাহফুজুল হক, ইসরাফিল প্রামাণিক রতন, ড. সিদ্দিক আহমদ চৌধুরী (চবি), ড. এম এ বারি মিয়া, অধ্যাপক খায়রুল (শাবিপ্রবি), ড. শামসুল আলম সেলিম (জাবি), ড. সাব্বির মোস্তফা খান (বুয়েট), অধ্যাপক তোজাম্মেল (ইবি) প্রমুখ।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইউট্যাব


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ