Inqilab Logo

ঢাকা শুক্রবার, ০২ অক্টোবর ২০২০, ১৭ আশ্বিন ১৪২৭, ১৪ সফর ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

নিজের হাতে নির্ভয়ার খুনিদের ফাঁসি দেবেন, রক্তে লেখা চিঠি

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯, ১২:০২ এএম

নির্ভয়া কান্ডে চার অপরাধীর মৃত্যুদন্ডের সাজা কবে কার্যকর করা হবে, বর্তমানে ভারতেজুড়ে এখন সেই আলোচনা চলছে। দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে ফাঁসির সাজা দ্রুত কার্যকর করার দাবি ক্রমাগত জোরালো হচ্ছে। এমন পরিস্থিতিতে এবার সরাসরি কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহকে নিজের রক্ত দিয়ে চিঠি লিখলেন ভারতের আন্তর্জাতিক মহিলা শুটার ভর্তিকা সিং। চিঠিতে তিনি নির্ভয়া কান্ডে চার অপরাধীর ফাঁসি নিজ হাতে দেয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রীর কাছে অনুমতি চেয়েছেন।

শুটার ভর্তিকা কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে আবেদন জানিয়ে লিখেছেন, নির্ভয়া কান্ডের চার অপরাধীকে ফাঁসি দিতে চান তিনি। যার ফলে সারা দেশের কাছে বার্তা যাবে মহিলারাও মৃত্যুদন্ডের সাজা কার্যকর করতে পারেন। চিঠিতে তিনি উত্তরপ্রদেশের মহিলা অভিনেত্রী ও সাংসদের সমর্থন চেয়েছেন। তার আশা এই কাজ তাকে দিয়ে করানো হলে, সমাজে বড় পরিবর্তন আসবে।
ইতিমধ্যে তিহার জেলে চার অপরাধীর ফাঁসির সাজা কার্যকর করার জন্য যুদ্ধকালিন তৎপরতায় শুরু হয়েছে কাজ। প্রায় সব প্রস্তুতি শেষ। তৈরি হয়ে আছে ফাঁসির দড়ি, পৌঁছে গেছে জল্লাদও। শুধু দোষীদের মধ্যে বিনয় কুমার দিল্লি সরকার ও কেন্দ্রের কাছে প্রাণভিক্ষার অনুরোধ জানিয়েছিলেন। কিন্তু গত সপ্তাহে দু’পক্ষই তা খারিজ করে রাষ্ট্রপতির কাছে পাঠিয়েছে। ফলে প্রেসিডেন্টের সিদ্ধান্তের উপর নির্ভর করছে।
যদিও সম্প্রতি বিনয় জানিয়েছেন, ওই আবেদন তুলে নিতে চান তিনি। আইনজীবী তাকে না জানিয়েই প্রাণভিক্ষার আবেদন করেছেন বলে তার দাবি। অন্য দিকে, সুপ্রিম কোর্টে ফাঁসির সাজা বহাল রাখার পর রায় পুনর্বিবেচনার আবেদন জানিয়ে রিভিউ পিটিশন দাখিল করেছিলেন তিন দোষী বিনয়, মুকেশ ও পবন। কিন্তু শীর্ষ আদালত সেই আর্জি খারিজ করে দিয়েছে। এ বার অন্য অভিযুক্ত অক্ষয় ঠাকুরও সুপ্রিম কোর্টে রিভিউ পিটিশন দাখিল করেছেন। শীর্ষ আদালত এখনও সেই মামলায় সিদ্ধান্ত জানায়নি। তাই এখন শুধু সময়ে আপেক্ষা। সূত্র : টিওআই।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভারত


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ