Inqilab Logo

ঢাকা শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৯ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

এসেই ভিলিয়ার্সকে ফেরাতে বাউচারের উদ্যোগ

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯, ১২:০০ এএম

 ওয়ানডে বিশ্বকাপে ভরাডুবির পর দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেটে চলছে পালাবদল। দেশটির ক্রিকেট বোর্ডের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক হয়েছেন সাবেক অধিনায়ক গ্রায়েম স্মিথ। তিনি এসেই দলটির প্রধান কোচ হিসেবে নিয়োগ দিয়েছেন এক সময়ের সতীর্থ সতীর্থ মার্ক বাউচারকে। সাবেক এই উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান দায়িত্ব বুঝে নেওয়ার পর উদ্যোগী হয়েছেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসরে যাওয়া এবি ডি ভিলিয়ার্সকে দলে ফেরাতে।
আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের চাপ নিতে পারছেন না এমন যুক্তি দেখিয়ে ২০১৮ সালের মে মাসে অবসরে গিয়েছেন ডি ভিলিয়ার্স। তবে বিশ্বজুড়ে ফ্রাঞ্চাইজিভিত্তিক টি-টোয়েন্টি লিগগুলোতে এখনও দাপটের সঙ্গে খেলে যাচ্ছেন মিস্টার ৩৬০ ডিগ্রি খ্যাত তারকা। দক্ষিণ আফ্রিকায় চলমান টি-টোয়েন্টি আসর মাজানসি সুপার লিগে ঝলক দেখিয়ে যাচ্ছেন এবি। প্রতিযোগিতাটির চতুর্থ সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক এই ডানহাতি ব্যাটসম্যান।
ইংল্যান্ডের মাটিতে সবশেষ ৫০ ওভারের বিশ্বকাপের আগে দলে ফিরতে চেয়েছিলেন ডি ভিলিয়ার্স। আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলার ইচ্ছার কথা জানিয়েছিলেন কোচ-অধিনায়কের কাছে। কিন্তু দক্ষিণ আফ্রিকান বোর্ডের সায় ছিল না ভিলিয়ার্সের প্রস্তাবে। তাই ফেরা হয়নি তার, খেলা হয়নি বিশ্বকাপে।
তবে সামনে থাকা আরেকটি বিশ্বকাপে ঠিকই সুযোগ মিলতে পারে ভিলিয়ার্সের। আগামী বছর অক্টোবরে অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠিত হবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। সেখানে দক্ষিণ আফ্রিকার সেরা দলটিকে নিয়ে যেতে চান শনিবার (১৪ ডিসেম্বর) প্রধান কোচ হওয়া বাউচার। আর তার ভাবনায় খুব ভালোভাবেই আছেন ডি ভিলিয়ার্স, ‘যখন আপনি একটি বিশ্বকাপে খেলতে যান, তখন আপনি চাইবেন আপনার সেরা খেলোয়াড়রা যেন দলের হয়ে খেলে। তাই আমি কেন তার (ডি ভিলিয়ার্সের) সঙ্গে আলোচনায় বসতে চাইব না?’ কেবল ভিলিয়ার্স নয়, দলের প্রয়োজনে যে কারও সঙ্গে আলোচনার টেবিলে বসতে রাজি তিনি, ‘আমি হয়তো আরও কয়েক জন খেলোয়াড়ের সঙ্গে কথা বলে দেখতে পারি। দেখতে পারি তারা কোথায় আছে, কী করছে।’
দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেটকে চেনা পথে ফেরানোর পরিকল্পনার কথাও জানিয়েছেন উইকেটরক্ষক হিসেবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ৯৯৯টি ডিসমিসালের রেকর্ডধারী বাউচার, ‘একজন কোচের দৃষ্টিকোণ থেকে বললে, আমি স্কোয়াডের গভীরতা বাড়াতে ও দলকে আরও শক্তিশালী করতে পছন্দ করব। এটা সবাইকে সতর্ক ও তৎপর রাখবে এবং এই দেশের ক্রিকেটে আরও উন্নতি নিয়ে আসবে।’



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভিলিয়ার্স

২২ এপ্রিল, ২০১৮
২২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬

আরও
আরও পড়ুন