Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ০৬ এপ্রিল ২০২০, ২৩ চৈত্র ১৪২৬, ১১ শাবান ১৪৪১ হিজরী
শিরোনাম

দেশে অসংক্রামক রোগে ৫ লাখ ৭২ হাজার ও তামাকজনিত রোগে মারা যায় ১ লাখ ২৬ হাজার মানুষ

বগুড়ায় সুপ্র’র সেমিনারে তথ্য

বগুড়া ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ১৭ ডিসেম্বর, ২০১৯, ৫:৪৮ পিএম

বগুড়ায় সুশাসনের জন্য প্রচারাভিযান (সুপ্র)’র উদ্যোগে তামাক মৃত্যু ঘটায়, তামাকে সরকারের শেয়ার প্রত্যাহার করুন’ শীর্ষক নাগরিক সংলাপ মঙ্গলবার সকালে সিভিল সার্জন কার্যালয়ের সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত হয়। সুপ্র জেলা সভাপতি প্রদীপ ভট্টাচার্য্য শংকরের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সংলাপে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন,বগুড় া- ৫ এর সংসদ সদস্য হাবিবর রহমান। প্রধান অতিথি বলেন,তামাক ব্যবহার বন্ধ ও তামাক নিয়ন্ত্রণে সকল শ্রেণি-পেশার মানুষকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।সংলাপে বিশেষ অতিথি হিসেবে অংশগ্রহন করেন, বগুড়ার সিভিল সার্জন ডা. গওসুল আজিম চৌধুরী,জেলা আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক রাগেবুল আহসান রিপু। সুপ্র সম্পাদক কে জী এম ফারুকের সঞ্চালনায় সংলাপে অন্যান্যের মধ্যে অংশগ্রহন করেন,স্বাধিনতা চিকিৎসক পরিষদ (স্বাচিপ)’র সভাপতি ডা. সামির হোসেন মিশু,ডেপুটি সিভিল সার্জন ডা. মোস্তাফিজুর রহমান তুহিন,বগুড়া আইন কলেজের অধ্যক্ষ এড. আল মাহমুদ,সিনিয়র স্বাস্থ্যশিক্ষা অফিসার আব্দুল হান্নান,মুক্তিযোদ্ধা,গবেষক ও লেখক নাজমুল হক খান, জেলা ছাত্রলীগ’র প্রাক্তন সভাপতি আব্দুল বাছেত, মালতীনগর হাইস্কুলের প্রাক্তন প্রধান শিক্ষক মিজানুর রহমান,বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন(বাপা)’র সহ-সভাপতি অধ্যাপক আব্দুল মান্নান,আলোর পথে’র নির্বাহী পরিচালক রফিকুল ইসলাম,ফ্যামিলি কেয়ার ফাউন্ডেশন’র নির্বাহী পরিচালক ড. সাকিল আহমেদ,প্রাক্তন কমিশনার কানিজ রেজা,গণতান্ত্রিক বাজেট আন্দোলনের সাধারন সম্পাদক শেখ আবু হাসানাত সহিদ,সম্মিলিত সাংষ্কৃতিক জোট’র সাবেক জেলা সাধারন সম্পাদক সাদেকুর রহমান সুজন,সংশপ্তক থিয়েটার’র সহ-সভাপতি নিভা সরকার পূর্ণিমা,স্বপ্ন’র নির্বাহী পরিচালক জিয়াউর রহমান,আদিবাসি পরিষদ’র জেলা সমন্বয়ক বিমল রবি দাস,পেভ’র জেলা সমন্বয়ক জিএম পারভেজ ড্যারিন প্রমুখ।

সভায় বক্তারা বলেন , তামাক অসংক্রামক রোগজনিত মৃত্যুর অন্যতম প্রধান কারণ। অসংক্রামক রোগে প্রতিবছর বাংলাদেশে ৫ লক্ষ ৭২ হাজার মানুষ মারা যায়। এর মধ্যে শুধু তামাকজনিত রোগের কারণে মারা যায় ১ লক্ষ ২৬ হাজার। তাই এ খাতে বিনিয়োগ অব্যাহত রেখে ২০৩০ সালের মধ্যে অসংক্রামক রোগজনিত মৃত্যু এক-তৃতীয়াংশে নামিয়ে আনা সম্ভব নয়।এছাড়াও তামাকখাতে সরকারের আয়ের চেয়ে ব্যয় বেশি। তামাকজনিত রোগে চিকিৎসা ব্যয় ৩০,৫৬০ কোটি টাকা, অথচ তার বিপরীতে রাজস্ব আয় ২২,৮১০ কোটি টাকা।এধরণের ক্ষতিকর ও অলাভজনক খাতে বিনিয়োগ অব্যাহত রাখা সম্পূর্ণরূপে অযৌক্তিক। ক্ষতিকর ও অলাভজনক তামাকখাত থেকে ইতোমধ্যে বিশ্বের বিভিন্ন দেশ প্রায় ১২ বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ প্রত্যাহার করেছে । আধা বেলার এই সংলাপে অর্ধশতাধিক বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার প্রতিনিধি অংশগ্রহন করেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সেমিনার


আরও
আরও পড়ুন