Inqilab Logo

শনিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২২, ১৫ মাঘ ১৪২৮, ২৫ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

ধামরাইয়ে ৭ টি ইটভাটা গুড়িয়ে দিল ভ্রাম্যমান আদালত ৩৫ লক্ষ টাকা জরিমানা

ধামরাই(ঢাকা) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ৩০ ডিসেম্বর, ২০১৯, ৫:০৬ পিএম

ঢাকার ধামরাই উপজেলায় পরিবেশ অধিদপ্তরের ছাড় পত্র না থাকায় ৭ টি অবৈধ ইটভাটা গুড়িয়ে দিয়েছে পরিবেশ অধিদপ্তরের ভ্রাম্যামাণ আদালত। সেই সাথে ইটভাটার মালিকদের প্রত্যেককে ৫ লক্ষ টাকা করে জরিমানা করা হয়েছে।
আজ সোমবার দুপুরের দিকে ধামরাইর ভাড়ারিয়া ও মালঞ্চ এলাকায় পরিবেশ অধিদপ্তরের নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট এর নেতৃত্বে এ অভিযান পরিচালানা করা হয়। এসময় পুলিশ সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।
পরিবেশ অধিদপ্তরের নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট জানান, হাইকোর্টের নির্দেশে ধামরাইর ওই এলাকায় অবৈধ ইটভাটার উপর অভিযান পরিচালনা করা হয়। এসময় পরিবেশ অধিদপ্তরের ছাড়পত্র না থাকায় ও কৃষি জমির টপ সয়েল ব্যবহারের অভিযোগে স্থানীয় সেভেন ষ্টার, জ্যো¯œা, নান, আবুল বাশার , এমএন, কিং ও হালালসহ ৭ টি ইটভাটা ভেক্যু মেশিন দিয়ে গুড়িয়ে দেওয়া হয়। সেই সাথে ওই সব ইটভাটার মালিকদের জরিমানা করা হয় ৫ লক্ষ টাকা করে ৩৫ লক্ষ টাকা। জরিমানার টাকাও আদায় হয়েছে। এ অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে জানিয়েছেন নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মাকসুদুল ইসলাম।
জানা গেছে, ইট প্রস্তুত ও ভাটা স্থাপন নিয়ন্ত্রন আইন অনুযায়ী ২ / ৩ ফসলি আবাদি কৃষি জমি, আবাসিক এলাকা, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, হাট বাজার থেকে কমপক্ষে এক কিলোমিটার এবং গ্রামীন বা ইউনিয়ন পরিষদ রাস্তা থেকে অন্তত অর্ধ কিলোমিটারের মধ্যে ইটভাট স্থাপন করা যাবে না। অথচ রাজধানী ঢাকার অদূরে ধামরাইয়ে এ ধরনের নিয়ম ভঙ্গ করে স্থাপন করা হয়েছে প্রায় ২০০ ইটের ভাটা।

এ সব ইটের ভাটার মালিক পূর্বে নানা কৌশলে ছাড়পত্র পেলেও চলতি বছর পরিবেশ অধিদপ্তর থেকে কোন প্রকার ছাড়পত্র পায়নি। চলতি বছর ছাড়পত্র না পেলেও যাথারীতি তাদের ভাটায় ইট তৈরীর কাজ চলছিল।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইটভাটা

১৪ ডিসেম্বর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ